স্বাস্থ্যকথা

কাঁচা পেঁপের যতো উপকারিতা

  

পিএনএস: পেঁপে বেশ সুস্বাদু একটি ফল। পাকলে এটি বেশ রসালো ও মিষ্টি হয়। এই পেঁপে কাঁচা থাকতেও খাওয়া যায়। সালাদ করে, তেঁতুল-মরিচ দিয়ে মাখিয়ে কিংবা সবজি হিসেবে রান্না করে খাওয়া হয় কাঁচা পেঁপে। কাঁচা পেঁপেতে রয়েছে প্রচুর পরিমাণ ভিটামিন। বিভিন্ন রকম অসুখ সারাতে কাঁচা পেঁপে খুবই উপকারি। অন্যান্য ফলের তুলনায় পেঁপেতে ক্যারোটিন অনেক বেশি থাকে। কিন্তু ক্যালরির পরিমাণ অনেক কম থাকায় যারা মেদ সমস্যায় ভুগছেন তারা অনায়াসে খেতে পারেন এ ফলটি। জেনে নিন কাঁচা পেঁপের কিছু উপকারিতা-পেঁপেতে আছে এন্টি-

ঈদের পর ডায়রিয়া হলে যা করবেন

  

পিএনএস ডেস্ক: দীর্ঘ এক মাস রোজা রেখে হঠাৎ ঈদের সময় ভারি ও তেলের খাবার খেয়ে অনেকেরই পেটে সমস্যা হয় বিশেষ করে ডায়রিয়া। তার মধ্যে গরমের এই সময়ে পানিবাহিত অসুখ ডায়রিয়ার প্রকপ বেশি থাকে। মেডিসিন বিশেষজ্ঞদের মতে, শিশুরা এই অসুখে তুলনামূলক বেশি আক্রান্ত হয়। কারণ তাদের রোগ প্রতিরোধ করার ক্ষমতা কম থাকে। তবে বড়দের ক্ষেত্রেও সময় মতো চিকিৎসা শুরু না করলে এই অসুখ মারাত্মক আকার নিতে পারে।ডায়েরিয়া মূলত পানিবাহিত ব্যাকটেরিয়া থেকে ছড়ায়। আবার অতিরিক্ত ভুরিভোজ করলেও হতে পারে ডায়রিয়া। শরীরের পানি বেরিয়ে

নিয়মিত তোকমা দানা ভিজিয়ে খেলে কি হয়!

  

পিএনএস ডেস্ক: আয়ুর্বেদিক চিকিৎসায়ও তোকমা বীজ অন্যতম একটি উপাদান। এটি স্থানভেদে সবজা বীজ, মিষ্টি বাসিল, ফালুদা বীজ কিংবা তুর্কমারিয়া বীজ হিসেবে পরিচিত। বহু গুণ রয়েছে বীজটির।একশো গ্রাম তোকমাতে রয়েছে দুইশো ৩৩ কিলোক্যালরি পরিমাণ শক্তি, ২৩ গ্রাম প্রোটিন ও ৪৮ গ্রাম কার্বোহাইড্রেট। তোকমা সারারাত পানিতে ভিজিয়ে রাখুন এবং সকালে খালি পেটে সে পানি পান করুন। ভালো ফলাফলের জন্য নিয়মিত খান। এতে গ্যাস্ট্রিক ও পেটের যেকোনো সমস্যা সহজেই দূর হয়ে যাবে। তবে তোকমা পানিতে ভেজানোর ১০ থেকে ১৫ মিনিট পরই তা

ঈদের খাবার হজম করবে ঝাল বোরহানি

  

পিএনএস ডেস্ক: খাওয়ার লোভ সামলানো বড় দায়। আর কোনও উৎসব অনুষ্ঠান সামনে থাকলে তো কথাই নেই। খাওয়াটা একটু বেশিই হয় বেহিসেবীই হয়। কিন্তু খাওয়া যদি হজম করার মতো যথেষ্ট শক্তি না থাকে তবেই তো যত ঝামেলা। বদহজমে শরীর অসুস্থ হয়ে পড়ে। ঈদ চলে গেলেও ঈদের খাওয়াদাওয়া এখনও চলছে। আর এই খাওয়াদাওয়া হজম করতে বোরহানি বিশেষ কার্যকরী। তাই টক দই দিয়ে ঘরেই তৈরি করতে পারেন হজমে সাহায্যকারী এই পানীয় বিশেষ। বোরহানি ঢাকা এবং চট্রগ্রামের বিয়েতে বেশি আয়োজন করা হয়। তবে ঢাকায় বিয়ে ছাড়াও বিভিন্ন সামাজিক

জেনে নিন অলিভ অয়েলের ৬ আশ্চর্য ব্যবহার

  

পিএনএস ডেস্ক : ভেষজ গুণে ভরপুর অলিভ বা জলপাই ফলের নির্যাস বা তেলকে ‘তরল সোনা’ বলেও ব্যাখ্যা করেন অনেকে। যুগ যুগ ধরে এই তেল রান্না ছাড়াও ঘরোয়া চিকিত্সার নানা কাজে ব্যবহৃত হয়ে আসছে। রূপচর্চার ক্ষেত্রেও অলিভ অয়েল অত্যন্ত কার্যকরী! আসুন জেনে নেওয়া যাক অলিভ অয়েলের কয়েকটি আশ্চর্য গুণ…১) নখ লম্বা রাখতে যাঁরা ভালবাসেন তাঁরা নখের কিউটিকলকে আরও মজবুত রাখতে অলিভ অয়েল ব্যবহার করে দেখুন। উপকার পাবেন।২) পা বা পায়ের গোড়ালি ফাটার সমস্যা সারাতে দুর্দান্ত কাজ দেয় অলিভ অয়েল। ফাটা গোড়ালিতে অলিভ

ঈদে বাদামি কোরমা

  

পিএনএস ডেস্ক : ঈদে পোলাউয়ের সাথে মাংসের কোরমা কার না পছন্দ। নানা রকম খাবারের মাঝে এটি সবার নজর কাড়ে। তবে একই ভাবে তৈরি না করে কিছু ভিন্নতা নিয়ে আসুন। খুব সহজে বাড়িতে তৈরি করে ফেলুন বাদামি কোরমা।বাদাম পেস্ট তৈরির উপকরণপোস্তদানা ১ টেবিল চামচ, কাঠ বাদাম ১/২ কাপ গরম পানিতে ভিজিয়ে ছোলা তোলা, কিছমিছ ১ টেবিল চামচ, নারিকেল কোরানো ২ টেবিল চামচ, দুধ ১ কাপ।প্রণালিকয়েক পিস বাদাম রেখে বাকিগুলো ও উপরের অন্যান্য সব উপাদান মিশিয়ে ব্লেন্ড করে পেস্ট বানিয়ে নিন।কোরমা রান্নার উপকরণগরুর/খাসির মাংস

কালোজামের এত গুণ!

  

পিএনএস ডেস্ক : বাজারে পাওয়া যাচ্ছে কালোজাম। পথেঘাটেও বিক্রি হয়ে গেছে মে-জুন মাসের এ ফলটি। গ্রীষ্মের এ ফলটি দেখতে কুচকুচে কালো হলেও স্বাদে ভরপুর। এটির আছে স্বাস্থ্যগত উপকারিতাও।জামের গুণের শেষ নেই। এতে পাবেন অ্যান্টি অক্সিডেন্ট, রোটিন, ফাইবার, আয়রন, ক্যালসিয়াম, ফসফরাস, পটাশিয়াম, ম্যাংগানিজ, ভিটামিন বি সিক্স, ভিটামিন সি।১. ত্বককে মসৃণ ও স্বাস্থ্যবান করতে অনেক ভূমিকা রাখে জাম।২. দাঁত ও মাড়ির সুরক্ষায় দারুণ কাজ দেয়। মুখ থেকে দুর্গন্ধ ও মাড়ি থেকে রক্ত বের হওয়া প্রতিরোধ করে। দাঁত ঝকঝকেও

জন্ডিস থেকে বাঁচার উপায়

  

পিএনএস ডেস্ক: গরম এলেই বেড়ে যায় হেপাটাইটিস এ- এর প্রভাব, যাকে আমরা জন্ডিস বলেই বেশি চিনি। তাই খাবার খাওয়ার ক্ষেত্রে সবচেয়ে সাবধানে থাকা জরুরি, কারণ পানি বা খাবার থেকেই এই ধরনের সমস্যা ছড়াতে আরম্ভ করে। এক্ষেত্রে সব বয়সীদেরই কিছু নিয়ম মেনে চলা জরুরি।মনে রাখবেন, আপনার লিভার বা যকৃৎ যেকোনো খাদ্য ও পানীয়কেই প্রসেস করে। তার ফলেই শরীর এনার্জি পায়। সেইসঙ্গে টক্সিন ও ড্যামেজড রক্ত কোষ শরীরের বাইরে বের করে দেওয়ার কাজেও তার গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা আছে। কোনো কারণে এই কাজকর্মে ব্যাঘাত ঘটলে শরীরে

ভীষণ মাথা ব্যথা দূর করার উপায়

  

পিএনএস ডেস্ক: হুটহাট মাথা ব্যথা হয় না এমন মানুষ খুঁজে পাওয়া যাবে না। আর একবার মাথা ব্যথা হলে তা যেন সহজে ছাড়ে না। এমন অবস্থায় মন দিয়ে কোনো কাজ করাও সম্ভব হয় না। কখনোবা ওষুধ খেয়ে তবেই মাথা ব্যথা দূর করতে হয়। তবে এই পরিস্থিতিতে ওষুধ ছাড়াই আপনাকে আরাম দিতে পারে, এমন কয়েকটি ঘরোয়া সমাধান জেনে নিতে পারেন-রগের দুই পাশ বা ঘাড়ের কাছটা যদি খানিকক্ষণের জন্য ম্যাসাজ করতে পারেন, তাহলে খুবই ভালো হয়। অনেক সময় স্ট্রেস বা ক্লান্তির কারণেও মাথা ধরে, সে ক্ষেত্রে এই ম্যাসাজ খুব কাজে দেবে। বুড়ো আঙুল আর

ইফতারে খান তরমুজের মিল্কশেক

  

পিএনএস ডেস্ক :রোজার মাসে গরম যেন লাগাম ছাড়া। এই গরমে তৈরি হতে পারে পানিশূন্যতার। ইফতারে এ জন্য পানিসহ অন্যান্য তরল খাবার খাওয়া দরকার। এক্ষেত্রে তরমুজের মিল্কশেক হতে পারে উত্তম এক পানীয়। যা যা লাগবে: কিউব করে কাটা বীজ ছাড়া তরমুজ, এক কাপের এক চতুর্থাংশ কসডেন্সড মিল্ক, দেড় কাপ পানি, আধা চামচ ভ্যানিলা এসেন্স , বরফ কুচি। যেভাবে বানাবেন: সবগুলো উপাদান ব্লেন্ডারে নিয়ে ভাল করে ব্লেন্ড করুন। এরপর এতে বরফ কুচি যোগ করুন। তৈরি হয়ে গেলো মজাদার তরমুজের মিল্কশেক। পিএনএস/এএ

Developed by Diligent InfoTech