তানোরে আলুর জমিতেই কৃষকের মানববন্ধন

  

পিএনএস, তানোর (রাজশাহী) সংবাদদাতা : রাজশাহীর তানোরে কৃষকেরা হেকেম সীড্স বাংলাদেশ লিমিটেডের আলু বীজ নিয়ে বিপাকে পড়েছেন। হেকেম সীড্সের বীজ নিয়ে অনেক আলুচাষীদের জমিতে গাছ ভাল ভাবে গজায়নি। এছাড়া অনেক আলুবীজ মাটির নিচে পচে গেছে। এঘটনায় কৃষকরা ক্ষতিপূরণের দাবিতে শুক্রবার বিকালে তানোর পৌর এলাকার ধানতৈড় গ্রামে আলুর জমিতেই আলুর গাছ ও বীজের খালিবস্তা হাতে নিয়ে মানববন্ধন করেন।

ক্ষতিগ্রস্ত ধানতৈড় গ্রামের কৃষক জসিম মন্ডল, হাবিবুর মন্ডল, আব্দুল রশিদ, মেছের আলী, মুসা করিম, শফিকুল, কাশিম মন্ডল, হারুন, আফসার আলী, মতিউর, মিলনসহ অনেকে অভিযোগ করে বলেন, এবার হেকেম সীড্স বাংলাদেশ লিমিটেডের বীজ নিয়ে আলুর গাছ ভাল ভাবে গজায়নি। ফলে আমাদের জমির মাঠে ২৮০ বিঘা জমিতে হেকেমের আলুর বীজ লাগিয়ে সবারই ক্ষতিগ্রস্ত মধ্যে পড়েছি। বিঘা প্রতি ২০ হাজার টাকা ধরলেও ৫৬ লাখ টাকা আমাদের ক্ষতি হবে।

কৃষকরা আরও জানান, হেকেম সীড্স বাংলাদেশ লিমিটেডের বীজ মার্কেটিং অফিসার রফিকুল ইসলাম আমাদের বিভিন্ন প্রলোভন দিয়ে তাদের আলু বীজ দিয়েছে। বিষয়টি আমরা উপজেলা কৃষি কর্মকর্তাকে জানিয়েছি। কৃষি অফিসের লোকজন আলুর জমি দেখে আলুর বীজের সমস্যার কথা জানান তারা। ধার দেনা করে আলুর জমিতে টাকা খরচ করেছি। আলুর ফলন ভাল না হলে কিভাবে ধারের টাকা পরিশোধ করবো।

এ নিয়ে হেকেম সীড্স বাংলাদেশ লিমিটেডের মার্কেটিং অফিসার রফিকুল ইসলাম বলেন, বিষয়টি আমি আমার কর্তৃপক্ষকে অবহিত করেছি। তানোর উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা শফিকুল ইসলাম বলেন, হেকেম কোম্পনীর বীজ নিয়ে ক্ষতিগ্রস্ত কৃষকরা আমাদের কাছে একটি লিখিত অভিযোগ করেছে। ক্ষতিপূরণ দেবার জন্য আমরা কোম্পানী লোকজনদের সঙ্গে কথা বলবো। তাতে তারা রাজি না হলে আইন অনুয়ায়ী ব্যবস্থা নেয়া হবে।

তানোর উপজেলা নিবার্হী কর্মকর্তা (ইউএনও) মুহা.শওকাত আলী বলেন, একটি লিখিত অভিযোগ পেয়েছি। কৃষি কর্মকর্তাকে ব্যবস্থা গ্রহনের জন্য বলা হয়েছে।

পিএনএস/মোঃ শ্যামল ইসলাম রাসেল

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech