২০১৭-১৮ অর্থবছরে দেশে রেমিটেন্স আসছে ১৪৯৮ কোটি ডলার

  

পিএনএস ডেস্ক :সদ্য বিদায়ী ২০১৭-১৮ অর্থবছরে প্রায় দেড় হাজার কোটি ডলার দেশে পাঠিয়েছেন বিভিন্ন দেশে কর্মরত বাংলাদেশিরা। বাংলাদেশের ইতিহাসে এটি এক বছরে পাঠানো দ্বিতীয় সর্বোচ্চ রেমিটেন্স। যা গত ৩ অর্থবছরের মধ্যে সর্বোচ্চ আর গত অর্থবছর থেকে ১৭ শতাংশ বেশি।

বাংলাদেশ ব্যাংকের সবশেষ প্রতিবেদনে এসব তথ্য উঠে এসেছে।

রেমিটেন্সের এই অংক বাংলাদেশের ইতিহাসে আসা এক অর্থবছরে দ্বিতীয় সর্বোচ্চ। এর আগে ২০১৪-১৫ অর্থবছরে ১৫ দশমিক ৩১ বিলিয়ন ডলার রেমিটেন্স এসেছিল।

বিশ্লেষকরা বলছেন, আন্তর্জাতিক বাজারে তেলের দাম বৃদ্ধি, স্থানীয় বাজারে ডলারের তেজিভাব এবং হুন্ডি ঠেকাতে কেন্দ্রীয় ব্যাংকের নানা পদক্ষেপের কারণে রেমিটেন্স বেড়েছে।

বাংলাদেশ ব্যাংকের তথ্যে দেখা যায়, প্রবাসী বাংলাদেশিরা ২০১৭-১৮ অর্থবছর শেষে ব্যাংকিং চ্যানেলে ১ হাজার ৪৯৮ কোটি ডলারের রেমিটেন্স দেশে পাঠিয়েছেন। এর আগে ২০১৬-১৭ অর্থবছরে দেশে এসেছিল ১ হাজার ২৭৭ কোটি ডলার।

গত জুনে দেশে ১৩৮ কোটি ১৫ লাখ ডলার রেমিট্যান্স পাঠিয়েছেন প্রবাসীরা। এর মধ্যে রাষ্ট্রায়ত্ত ব্যাংকগুলোর মাধ্যমে রেমিট্যান্স আহরিত হয়েছে ৩৩ কোটি ৮৫ লাখ ডলার।

বিশেষায়িত দুটি ব্যাংকের মাধ্যমে এক কোটি ২৫ লাখ ডলার রেমিট্যান্স। এছাড়া বেসরকারি ব্যাংকগুলোর মাধ্যমে ১০১ কোটি ৮৪ লাখ ডলার এবং বিদেশি ব্যাংকগুলোর মাধ্যমে ১ কোটি ১৯ লাখ ডলার রেমিট্যান্স এসেছে। জুনেও বরাবরের মতোই বেসরকারি ইসলামী ব্যাংকের মাধ্যমে সবচেয়ে বেশি রেমিট্যান্স আহরিত হয়েছে।

রোজা এবং ঈদকে সামনে রেখে অর্থবছরের শেষ দুই মাস মে ও জুনে বেশি রেমিটেন্স পাঠিয়েছিন প্রবাসীরা। মে মাসে এসেছিল ১৪৮ কোটি ১৮ ডলার। দেশের রেমিটেন্সের অর্ধেকের বেশি আসে মধ্যপ্রাচ্যের ছয় দেশ- সৌদি আরব, সংযুক্ত আরব আমিরাত, কাতার, ওমান, কুয়েত ও বাহরাইন থেকে।

পিএনএস/এএ

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech