লবণের গুজব আতঙ্কে দেশ!

  

পিএনএস (মোঃ শ্যামল ইসলাম রাসেল) : দেশে পর্যাপ্ত পরিমাণ লবণের সরবরাহ থাকা সত্ত্বেও এক শ্রেণির অসাধু মহল লবণের মূল্যবৃদ্ধির গুজব রটাচ্ছে। তা ছাড়া স্বার্থান্বেষী কিছু খুচরা বিক্রেতা লবণের মজুত থাকার পরেও লবণ নেই বলে বাজারে অস্থিতিশীল পরিস্থিতি সৃষ্টি করছে। ক্রেতাদের বাড়তি চাপ দেখায় খুচরা বিক্রেতারা এখন আর ছাড় দিয়ে বিক্রি করছেন না, বেশি দামে লবণ বিক্রির আশায় কৃত্রিম সংকট তৈরি করছে বলে জানিয়েছেন ক্রেতারা।

সরেজমিনে গিয়ে দেখা গেছে ক্রেতাদের লবণ কেনার হিড়িক। বেলা বাড়ার সাথে সাথে ক্রেতারা ভীড় জমিয়েচ্ছেন নিকটস্থ বাজার-খুচরা দোকানগুলোতে। দৈনিক যাঁরা বাজার করেন তারা ছাড়াও অনেকের হাতে হাতে দেখা গেছে লবণের প্যাকেট। মূল্যবৃদ্ধির আশঙ্কায় কেউ দু’তিন কেজি, কেউ পাঁচ কেজি করে ক্রয় করছেন। ক্রেতারা বলছেন, তাঁরা শুনেছেন লবণের কেজিপ্রতি প্রায় ১০০টাকা ছাড়িয়ে যাবে।

ভালো মানের লবণের প্যাকেটের গায়ে সর্বোচ্চ খুচরা মূল্য লেখা ৩৫ টাকা। সাধারণ লবণের সর্বোচ্চ খুচরা মূল্য ২৫ টাকা। খুচরা বিক্রেতাদের কাছে বিপণনকারী কোম্পানি এক কেজি লবণ বিক্রি করেন ২৫ থেকে ২৬ টাকা দরে।

রাজধানীর সেগুনবাগিচা কাঁচা বাজারে লবণ কিনতে আসা ত্রেতা সুমন বলেন, লবণের দাম বাড়বে শুনে বাজারে আসি কিন্তু দেখি অনেক ভীড় কিছুক্ষণ পরে গেলে দোকানদার বলেন লবণের সাথে অন্যকিছু নিলে দেয়া যাবে। থাকা সত্ত্বেও তারা দিতে চাচ্ছে না।

এসিআই সল্ট বলছে, লবণের কোনো ঘাটতি নেই। তারা লবণের দাম কোনোভাবেই বাড়ায়নি এবং বাড়াবে না। নির্ধারিত মূল্যের চেয়ে বেশি কেউ এসিআইয়ের লবণ বিক্রি করছে কিনা, সেটা তারা নজরে রাখবে।

এ ধরনের গুজবে বিভ্রান্ত না হওয়ার জন্য আহ্বান জানিয়েছে শিল্প মন্ত্রণালয়।

শিল্প মন্ত্রণালয় এক বিজ্ঞপ্তিতে জানিয়েছে, দেশে বর্তমানে সাড়ে ৬ লাখ মেট্রিক টনের বেশি ভোজ্য লবণ মজুত রয়েছে। এর মধ্যে কক্সবাজার ও চট্টগ্রামের লবণ চাষিদের কাছে ৪ লাখ ৫ হাজার মেট্রিক টন এবং বিভিন্ন লবণ মিলের গুদামে ২ লাখ ৪৫ হাজার মেট্রিক টন লবণ মজুত রয়েছে।

এ দিকে মঙ্গলবার দুপুরে ডিএমপির যুগ্ম কমিশনার (অপারেশন) মনিরুল ইসলামের নির্দেশ পেয়ে থানা এলাকার পুলিশ সদস্যরা বিভিন্ন দোকানে গিয়ে লবণের মজুতের খোঁজখবর নিচ্ছেন।

যাঁরা এ ধরণের গুজব ছড়াচ্ছে তাদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া এবং লবণের মূল্য স্থিতিশীল রাখা সময়ের দাবী।

পিএনএস/মোঃ শ্যামল ইসলাম রাসেল




 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech