‘আমাকে জোরে চেপে ধরে ঘাড়ে মুখ গুঁজে দিত’

  

পিএনএস ডেস্ক : বলিউড ‘কুইন’ কঙ্গনা রানাউত অভিযোগ করেছেন, চলচ্চিত্র নির্মাতা বিকাশ বেহল বেশ কয়েকবার তাঁকে হেনস্তা করেছেন। প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান ফ্যান্টম ফিল্মসের এক নারীকর্মী এ চলচ্চিত্র পরিচালকের বিরুদ্ধে যৌন হেনস্তার অভিযোগের পর কঙ্গনাও একই অভিযোগ আনলেন।

কঙ্গনা জানান, ২০১৪ সালে ‘কুইন’ ছবির সেটে বিকাশ তাঁকে হেনস্তা করেছিলেন।

বিকাশ বেহল ছাড়াও ফ্যান্টম ফিল্মসের কর্ণধার হলেন অনুরাগ কাশ্যপ, বিক্রমাদিত্য মোতওয়ানি ও মধু মান্তেনা। ওই নারীকর্মীর অভিযোগ, গত বছর গোয়া ভ্রমণকালে বেহল তাঁর সঙ্গে আপত্তিকর আচরণ করেছিলেন।

সম্প্রতি হাফিংটন পোস্ট ইন্ডিয়ার নেওয়া এক সাক্ষাৎকারে ওই নারী ঘটনার বিশদ বর্ণনা দেন। প্রতিবেদন অনুযায়ী, ২০১৫ সালের অক্টোবরে ওই নারী অনুরাগ কাশ্যপকে সব ঘটনা খুলে বলেন। কিন্তু কোনো পদক্ষেপই নেননি তিনি। বেহল তাঁকে যৌন হেনস্তা করতেই থাকেন আর পরে বাধ্য হয়ে তিনি চাকরি ছেড়ে দেন। এ প্রতিবেদন ভাইরাল হওয়ার পর ‘কুইন’ অভিনেত্রী কঙ্গনা রানাউতও বেহলের বিরুদ্ধে মুখ খুললেন। ‘কুইন’ ছবির পরিচালক বিকাশ বেহল।

ওই নারীর প্রতি সমর্থন জানিয়ে কঙ্গনা বলেন, “আমি তাঁকে সম্পূর্ণ বিশ্বাস করি। ২০১৪ সালে কুইনের শুটিং চলাকালে তিনি বিবাহিত হওয়া সত্ত্বেও প্রতিদিন একজন নতুন সঙ্গীর সঙ্গে সঙ্গমে লিপ্ত হতেন। আমি মানুষকে ও তাদের বিয়েকে বিচার করি না; কিন্তু আসক্তি যখন অসুস্থতা হয়ে যায়, তখন মুখ খোলা উচিত। সে প্রতি রাতে পার্টি করত আর আমি রোজ তাড়াতাড়ি ঘুমিয়ে পড়তাম এবং তথাকথিত ‘কুল’ না হওয়ার জন্য আমাকে লজ্জায় ফেলা হতো।”

৩১ বছর বয়সী অভিনেত্রী কঙ্গনা বলেন, প্রথমবার যখন পরিচালকের সঙ্গে দেখা হয়েছিল, তখন তিনি তাঁকে অত্যন্ত জোরে চেপে ধরেছিলেন এবং তাঁর চুলের গন্ধ নিয়েছিলেন।

কঙ্গনা বলেন, “প্রতিবার কোনো সামাজিক অনুষ্ঠানে দেখা হলে আমরা পরস্পরকে জড়িয়ে ধরে অভ্যর্থনা জানাতাম। আর প্রতিবারই সে আমার ঘাড়ে মুখ গুঁজে দিত, আমাকে খুব জোরে চেপে ধরে আমার চুলের গন্ধ নিত। নিজেকে ওঁর কবল থেকে মুক্ত করতে বেশ বেগ পেতে হতো আমার। ও বলত, ‘তোমার গন্ধটা খুব ভালো লাগে।’”

কঙ্গনা আরো জানান, ওই নারীকর্মীর পাশে দাঁড়ানোর পর হরিয়ানার স্বর্ণজয়ী একজনকে নিয়ে ভালো চিত্রনাট্যসহ তিনি অনেকগুলো কাজের সুযোগ হারিয়েছেন। মুখ খোলার পর বেহল নাকি তাঁর সঙ্গে কথা বলা বন্ধ করে দিয়েছেন।

‘ওঁর মধ্যে নিশ্চয়ই কিছু গলদ আছে। আমি মেয়েটিকে বিশ্বাস করি। কিন্তু দুঃখের বিষয় হলো, ঘটনাটা চাপা পড়ে গেছে, অনেকেই তাঁকে আক্রমণ করছে; কিন্তু এ বিষয়ে মেয়েটি অনেক আগেই সাহায্য চেয়েছিল। ওই সময় বিষয়টা পুরোপুরি চাপা পড়ে গেলেও আমি মেয়েটির সঙ্গে পুরোপুরি সহমত। আমি ভেবেছিলাম, হ্যাশট্যাগ মি টু আন্দোলন কাজ করবে। কিন্তু ভুল ভেবেছিলাম।’

ক্ষোভ প্রকাশ করে কঙ্গনা বলেন, ‘এ সমাজের প্রতি সত্যিই লজ্জা হয়। কাপুরুষের দল, আয়নায় নিজেদের মুখ দেখুন, ক্ষমতাহীন মানুষদের আক্রমণ করে কিছুই কাজ হবে না। সুযোগসন্ধানী হওয়া বন্ধ করুন।’

হাফিংটন পোস্টের ওই প্রতিবেদন অনুসারে ফ্যান্টম ফিল্মস বন্ধ হয়ে যাওয়ার কারণ হিসেবে বিকাশ বেহলের বিরুদ্ধে ওঠা নানা অভিযোগকেই দায়ী করা হয়েছে।

২০১১ সালে প্রতিষ্ঠার পর ফ্যান্টম ফিল্মসের ব্যানারে ‘লুটেরা’, ‘কুইন’, ‘আগলি’, ‘এনএইচ-১০’, ‘বোম্বে ভেলভেট’, ‘মাসান’, ‘উড়তা পাঞ্জাব’, ‘রমণ রাঘব ২.০’, ‘ট্র্যাপড’সহ বেশ কয়েকটি ছবি নির্মিত হয়।

কঙ্গনা রানাউতের আসন্ন ছবি ‘মনিকর্ণিকা : দ্য কুইন অব ঝাঁসি’ বিকাশ বেহলের ফ্যান্টম ফিল্মসের ‘সুপার ৩০’-এর সঙ্গে একই দিনে মুক্তি পাবে, যা ফ্যান্টম ফিল্মসের শেষ প্রকল্প। আগামী ২৫ জানুয়ারি সিনেমা দুটি মুক্তি পাবে। সূত্র : ইন্ডিয়া টিভি, এনডিটিভি।

পিএনএস/জে এ

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech