এরদোগানের সঙ্গে বিতর্কে জড়াতে অনিচ্ছুক সাবেক প্রেসিডেন্ট আবদুল্লাহ গুল

  


পিএনএস ডেস্ক: তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রিসেপ তাইয়্যেপ এরদোগান ও ক্ষমতাসীন জাস্টিজ এন্ড ডেভেলপমেন্ট পার্টির (একে) নেতাদের সঙ্গে সাম্প্রতিক এক বিতর্ক নিয়ে নতুন করে যুক্তিতর্কে লিপ্ত হতে নিজের অনিচ্ছার কথা জানিয়েছেন দেশটির সাবেক প্রেসিডেন্ট আবদুল্লাহ গুল।

শুক্রবার ইস্তাম্বুলে পবিত্র জুমার নামাজ শেষে সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে তিনি এসব কথা বলেন।

২০১০ সালের অভ্যুত্থানের বিরুদ্ধে অংশ নেয়া বেসামরিকদের ফৌজদারি অপরাধের দায় থেকে অব্যাহতি দেয়ার জন্য রাষ্ট্রীয় জরুরি ডিক্রি আইনের তীব্র সমালোচনা করেন আব্দুল্লাহ গুল। তার এই সমালোচনাকে ক্ষমতাসীন একে পার্টি ও দলটির নেতা এরদোগান ভালভাবে নেয়নি।

আব্দুল্লাহ গুল বলেন, ‘এই বিষয় নিয়ে নতুন করে বিতর্কের মধ্যে প্রবেশ করা আমার উচিৎ হবে না।’

গত ১০ জানুয়ারি একে পার্টির সংসদীয় দলের সভায় দেয়া বক্তৃতায় আব্দুল্লাহ গুলের নাম সরাসরি উল্লেখ না করে এরদোগান বলেন, ‘যারা এক সময় আমাদের পার্টির অধীনে ছিল কিন্তু এখন ভিন্ন ধরনের দৃষ্টিভঙ্গি নিয়ে দল থেকে দূরে সরে গেছে, তাদের কোন অধিকার নেই আমাদের দলের সম্পর্কে কিছু বলার।’

তিনি বলেন, ‘যারা ট্রেন থেকে পড়ে গেছে, তাদের সাধ্য নেই ট্রেনে ওঠার। তারা যেখানেই পড়ে থাকবে।’

এই বিষয়ে নতুন করে মন্তব্য করতে নিজের অনিচ্ছার কথা উল্লেখ করে গুল বলেন, ‘সবকিছুই পরিষ্কার এবং প্রত্যেকেই একে অপরকে জানে। আমি এই বিষয় নিয়ে আমার বন্ধুদের সঙ্গে নতুন করে যুক্তি-তর্কের মধ্যে প্রবেশ করতে চাই না।’

জরুরি অবস্থা
দেশটিতে ষষ্ঠ বারের জন্য জরুরি অবস্থা বর্ধিত করার সর্বশেষ মন্ত্রিপরিষদের সিদ্ধান্ত সম্পর্কে গুগ বলেন, ‘আমি আশা করি এটাই হবে শেষ বর্ধিত জরুরি অবস্থা।’

তিনি আরো বলেন, ‘আমার মতে, এটি শেষবারের মতো সংসদে পাঠানো হয়েছে।’ সূত্র: হুরিয়েত ডেইলি নিউজ

পিএনএস/আনোয়ার

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech