বাবার সামনেই স্ত্রী-কন্যাকে গণধর্ষণ

  

পিএনএস ডেস্ক : বাবাকে গাছের সঙ্গে বেঁধে রেখে তার সামনেই মেয়ে ও স্ত্রীকে গণধর্ষণ করা হয়েছে। বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় ভারতের বিহারের গয়ার সোনদিহা গ্রামে এই জঘন্য ঘটনা ঘটেছে। এই ঘটনায় জড়িত থাকার অভিযোগে ২০ জনকে আটক করেছে পুলিশ।

নির্যাতিতাদের বক্তব্য অনুযায়ী, কমপক্ষে ১২ জন তাদের উপর নির্যাতন চালায়। এর মধ্যে মাত্র ২ জনকে শনাক্ত করা গেছে। সন্দেহজনক ২০ জনকে আটক করা হয়েছে।

জানা যায়, ওই ব্যক্তি বাইকে স্ত্রী ও মেয়েকে নিয়ে বাড়ি ফিরছিলেন। এসময় অপর ২টি বাইকে তাদের ঘিরে ফেলা হয়। পরে ওই ব্যক্তিকে নামিয়ে গাছের সঙ্গে দড়ি দিয়ে বেঁধে ফেলা হয়। এরপর প্রথমে স্ত্রী,পরে ১৫ বছর বয়সী মেয়েকে গণধর্ষণ করা হয়। অভিযুক্তদের প্রত্যেকের হাতে আগ্নেয়াস্ত্র ছিল। ফলে তারা ওই ব্যক্তির মাথায় বন্দুক ঠেকিয়ে তার সামনেই এই গণধর্ষণ করে।

বিষয়টি নিশ্চিত করে আইজি, পটনা, নায়ের হাসনেইন খান জানান, বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় এই নির্যাতনের আগে ওই ব্যক্তির মোবাইল ও টাকার ব্যাগ ছিনতাই করে অভিযুক্তরা। পরে ফিরে এসে তাদের ঘিরে ধরা হয়। ঘটনাস্থলে কমপক্ষে ২০ জন ছিল। এর মধ্যে প্রায় ১২ জন মা ও মেয়েকে ধর্ষণ করে।

পিএনএস/মোঃ শ্যামল ইসলাম রাসেল


 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech