প্যানেল ছাড়লেন সু চির ঘনিষ্ঠ পরামর্শক

  


পিএনএস ডেস্ক: মিয়ানমারের রাখাইন রাজ্যের রোহিঙ্গা সমস্যা সমাধানের লক্ষ্যে গঠিত আন্তর্জাতিক পরামর্শক প্যানেলের একজন গুরুত্বপূর্ণ সদস্য পদত্যাগ করেছেন। পদত্যাগকারী কোবসাক চুটিকুল থাইল্যান্ডের একজন সাবেক সংসদ সদস্য এবং রাষ্ট্রদূত।

পদত্যাগের কারণ হিসেবে তিনি এ পরামর্শক প্যানেলকেই ‘সমস্যার অংশ’ হিসেবে উল্লেখ করেছেন। তাঁর মতে এই প্যানেল নিজেই সমস্যার অংশ হয়ে উঠছে।

মিয়ানমারের রাখাইন রাজ্যে সে দেশের আইনশৃঙ্খলা রক্ষা বাহিনীর নির্মম অভিযানে বিপুলসংখ্যক রোহিঙ্গা অধিবাসী বাস্তুচ্যুত হয়েছে। খুন, ধর্ষণ ও অন্যান্য অত্যাচারের মুখে বাংলাদেশে পালিয়ে এসেছে বিপুলসংখ্যক রোহিঙ্গা।

পদত্যাগকারী কোবসাক চুটিকুল রোহিঙ্গা বিষয়ে আন্তর্জাতিক প্যানেলটির সেক্রেটারি ছিলেন। তাকে মিয়ানমারের স্টেট কাউন্সিলর অং সান সু চি নিজে পছন্দ করে নিয়োগ করেছিলেন। রাখাইন রাজ্যে সামরিক অভিযানের পর সৃষ্ট রোহিঙ্গা সংকট কিভাবে কাটানো যায়, সে বিষয়টি নিয়ে কাজ করছিল এই প্যানেল।

কোবসাক চুটিকুল জানান, মিয়ানমারের রাজধানী নেপিডোতে সরকারি কর্মকর্তাদের সঙ্গে প্যানেলের দ্বিতীয় পূর্ণাঙ্গ সভার আগে তাঁর অবস্থান অগ্রাহ্য করা হয়েছে। এরপর তিনি প্যানেল থেকে পদত্যাগের সিদ্ধান্ত নিয়েছেন এবং মৌখিকভাবে তা জানিয়ে দিয়েছেন।

তিনি বলেন, ‘আমরা কিছু একটা করছি, এমন ধারণা তৈরি করা খুবই বিপজ্জনক...রোম যখন পুড়ছে, তারা কিছু করছে!’

এর আগেও একই ধরনের পদত্যাগের ঘটনা ঘটেছে এই প্যানেল থেকে। গত জানুয়ারিতে প্যানেল থেকে পদত্যাগ করেন প্রবীণ মার্কিন কূটনীতিক গভর্নর বিল রিচার্ডসন। তিনি একসময় সু চির ঘনিষ্ঠ ছিলেন। তবে শেষ পর্যন্ত সু চির সঙ্গে উত্তপ্ত বাক্যবিনিময়ের পরেই তিনি পদত্যাগ করেন। পদত্যাগের সময় রিচার্ডসন অভিযোগ করেন বাস্তবে রোহিঙ্গা সমস্যা সমাধানে এ প্যানেল কোনো কাজ করছে না। যা করা হচ্ছে তা শুধুই লোক দেখানো। সূত্র : এএফপি

পিএনএস/আনোয়ার

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech