পুরো রমজান জুড়ে যে ৪টি আমলের নির্দেশ দিয়েছেন রাসুলুল্লাহ (সা.)

  

পিএনএস ডেস্ক: পবিত্র মাহে রমজান আত্মশুদ্ধি অর্জনের মাস। অনেক মর্যাদা ও ফজিলতপূর্ণ মাস। এ মাসে মহান আল্লাহ বান্দার প্রতি অবিরত রহমত ও বরকত নাজিল করেন। মাগফেরাত ও নাজাত দান করেন।

মানবতার মুক্তির জন্য বিশ্বনবী (সা.) রমজানে চারটি আমল করার নির্দেশ দিয়েছেন, সে বিষয়গুলো তুলে ধরা হলো-
এই মাস কল্যাণময় মাস। এ মাসে পবিত্র আল-কোরআন নাজিল হয়েছিল। এ মাস তাকওয়া ও সংযম প্রশিক্ষণের মাস। এ মাস সবরের মাস। এ মাস জীবনকে সব পাপ-পঙ্কিলতা থেকে মুক্তি দেয়।

আল্লাহপাক পবিত্র কালামে ঘোষণা করেন, ‘হে ঈমানদারগণ, তোমাদের উপর রোজা ফরজ করা হয়েছে। যেমন ফরজ করা হয়েছিলো তোমাদের পূর্ববর্তী লোকদের উপর। যেন তোমরা তাকওয়া অর্জন করতে পার।’ (সুরা বাকারা, আয়াত: ১৮৩)

পুরো রমজান তাসবিহ, ইসতেগফার ও দোয়ার মাধ্যমে অতিবাহিত করতে বিশেষ আদেশ দিয়েছেন প্রিয়নবী (সা.)। যাতে মানুষ এ বিশেষ আমল ও দোয়ার মাধ্যমে নিজেকে দুনিয়া ও পরকালের কল্যাণে পূর্ণাঙ্গভাবে তৈরি করতে পারেন।

বিশ্বনবি হযরত মুহাম্মদ (সা.) রমজান মাসে বেশি বেশি করে চারটি আমল করতে নির্দেশ দিয়েছেন। মুমিন মুসলমান যদি রমজান মাস জুড়ে আল্লাহর কাছে এ ৪টি কাজ করেন, তবে দুনিয়া ও পরকাল সফলকাম হবেন।

রাসুলুল্লাহ (সা.) বলেছেন, ‘এই রোজার মাসে তোমরা ৪টি কাজ বেশি বেশি করো-
এক. বেশি বেশি কালেমা শাহাদাত ‘আশহাদু আল্লা ইলাহা ইল্লাল্লাহ’ পড়া। দুই. আল্লাহর কাছে বেশি বেশি ইসতেগফার করা। তিন. আল্লাহর কাছে জান্নাত প্রার্থনা করা। চার. জাহান্নামের আগুন থেকে মুক্তি চাওয়া।

আল্লাহ তাআলা মুসলিম উম্মাহকে এ পবিত্র মাসে উল্লেখিত ৪টি কাজ যথাযথ করার তাওফিক দান করুন। আমিন।

পিএনএস/এএ

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech