এক ছবির দাম ৭৫৫ কোটি টাকা!

  

পিএনএস ডেস্ক: যুক্তরাষ্ট্রের চিত্রশিল্পী ডেভিড হকনি’র আঁকা একটি ছবি বৃহস্পতিবার ৯০ মিলিয়ন ডলারে বিক্রি হয়েছে। বাংলাদেশি টাকায় যার পরিমাণ ৭৫৫ কোটি। কোনো শিল্পীর জীবদ্দশায় বিক্রি হওয়া ছবির দামে আগের সব রেকর্ড ভেঙে দিয়েছে এটি।

সুইমিং পুলের ছবি আঁকায় বরাবরই ঝোঁক মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের চিত্রশিল্পী ডেভিড হকনি’র। ২০১৭ সালে তার ৮০তম জন্মবার্ষিকীতে প্রকাশিত সংকলনের প্রচ্ছদেও শোভা পায় একটি সুইমিং পুল। বর্তমানে আবার খবরের শিরোনামে তার আঁকা একটি সুইমিং পুলের চিত্র। হকনি’র ‘পোর্ট্রেট অফ অ্যান আর্টিস্ট’ নামের ছবিটি গত বৃহস্পতিবার নিউ ইয়র্কের একটি নিলামে রেকর্ড পরিমাণ দামে বিক্রি হয়।

এখন পর্যন্ত কোনো শিল্পীর বেঁচে থাকা অবস্থায় বিক্রি হওয়া শিল্পের সর্বোচ্চ দাম এটিই। এর আগে এই রেকর্ড ছিল আরেক মার্কিন শিল্পী জেফ কুনস-এর। তার আঁকা ‘বেলুন ডগ’ ছবিটি ২০১৩ সালে বিখ্যাত নিলাম সংস্থা খ্রিস্টিজ-এ বিক্রি হয়েছিল ৫৮ মিলিয়ন ডলারে।

ইতিহাস গড়া হকনির এই ছবির নিলাম প্রত্যক্ষ করতে মানুষের উৎসাহ ছিল তুঙ্গে। খ্রিস্টিজ-এর নিলাম অনুষ্ঠানে ছিল না তিল ধারণের জায়গাটুকুও। ছবিটির দাম যখন ৮০ মিলিয়ন পেরোতে শুরু করে, হাততালিতে ফেটে পড়ে সারা ঘর। অবশেষে ৯ কোটি ৩ লাখ ১২ হাজার ৫’শ ডলারে এসে থামে।

উল্লেখ্য, ১৯৭২ সালে ডেভিড হকনি’র এই ছবিটিই বিক্রি হয়েছিল মাত্র ২০,০০০ ডলারে। ছয় মাসের মাথায় সেই ছবি আবার বিক্রি হয় ৫০,০০০ ডলারে। একই ছবি এখন এত দামে বিক্রি হওয়ায় শিল্পী ক্ষুণ্ণ হবেন বলে মনে করেন খ্রিস্টিজ-এর যু্গ্ম-সভাপতি অ্যালেক্স রটার। তার মতে, ‘তিনি সত্যিই একজন মহান শিল্পী। বরং এই সময়ের জীবিত শিল্পীদের মধ্যে সবচেয়ে উল্লেখযোগ্য ডেভিড হকনি। এই ছবিটি তার অন্যতম শ্রেষ্ঠ সৃষ্টি।’

বৃহস্পতিবারের এই নিলাম খ্রিস্টিজ-এর বার্ষিক নিলামগুলির অন্যতম। গত বছর এই নিলামেই বিক্রি হয় লিওনার্দো দা ভিঞ্চি’র ‘সালভাদোর মুন্দি’ ছবিটি। চিত্রশিল্পের ইতিহাসে সবচেয়ে বেশি দামে বিক্রি হওয়া এই ছবি গত বছর বিক্রি হয় ৪৫০ মিলিয়ন ডলারে। কিন্তু জীবদ্দশায় নিজের সৃষ্টির এমন মূল্য পাওয়ার বড় রেকর্ডটি এখন হকনির।
সূত্র: ডয়েচে ভেলে

পিএনএস/হাফিজুল ইসলাম

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech