রোহিঙ্গাদের ফেরত পাঠাতে বাংলাদেশের পাশে থাকার আশ্বাস ভারতের

  


পিএনএস ডেস্ক: মিয়ানমার সেনাবাহিনীর নির্যাতন, নিপীড়নের শিকার হয়ে পালিয়ে বাংলাদেশে আশ্রয় নেয়া রোহিঙ্গা শরণার্থীদের সেই দেশে ফেরত পাঠাতে বাংলাদেশের প্রচেষ্টাকে সমর্থন জানিয়েছে ভারত।

বুধবার দিল্লিতে ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী সুষমা স্বরাজের সঙ্গে বাংলাদেশের পররাষ্ট্রমন্ত্রী আবুল হাসান মাহমুদ আলির সাক্ষাৎকালে বাংলাদেশের পাশে থাকার আশ্বাস দিয়েছেন সুষমা।

দুই পররাষ্ট্রমন্ত্রীর বৈঠক শেষে দিল্লিস্থ বাংলাদেশ হাইকমিশনের পক্ষ থেকে এক বিবৃতিতে জানানো হয় ‘রোহিঙ্গা শরণার্থীদের মিয়ানমারের রাখাইন প্রদেশে ফেরত পাঠানো ও সেখানে পুনর্বাসনের বিষয়টি নিশ্চিত করতে ভারতের পক্ষ থেকে সুষমা স্বরাজ বাংলাদেশকে সমর্থনের আশ্বাস দিয়েছেন’।

দুই দেশের পররাষ্ট্রমন্ত্রীর এই সাক্ষাতের পর ভারতের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র রবীশ কুমারও এক ট্যুইটে জানান, ‘ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী সুষমা স্বরাজ বাংলাদেশের পররাষ্ট্রমন্ত্রী আবুল হাসান মাহমুদ আলির সঙ্গে সাক্ষাৎ করেছেন। এই দুই নেতা বিভিন্ন দ্বিপাক্ষিক ইস্যু নিয়ে আলোচনা করেছেন’।

চলতি সপ্তাহেই কয়েক হাজার রোহিঙ্গাকে মিয়ানমারে ফিরিয়ে নিতে মিয়ানমার ও বাংলাদেশ সরকারের মধ্যে একটি চুক্তি হয়। সেই বিষয়টিও এদিন ভারতীয় পররাষ্ট্রমন্ত্রীকে জানিয়েছেন মাহমুদ আলি। ওই চুক্তি মোতাবেক রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন প্রক্রিয়টি শুরু হওয়ার দুই বছরের মধ্যে সম্পন্ন হবে। প্রত্যাবাসনের জন্য যাচাই-বাছাই ও রোহিঙ্গাদের ফেরার ক্ষেত্রে পরিবারগুলোকে একেকটি ইউনিট হিসাবে বিবেচনা করা হবে।

হাই কমিশন থেকে দেয়া ওই বিবৃতিতে আরো জানানো হয়, রাখাইন প্রদেশে রোহিঙ্গাদের পুনর্বাসনের জন্য ঘর নির্মাণসহ বিভিন্ন ক্ষেত্রে ভারতের অংশীদারত্বের বিষয়টিও এদিন মাহমুদ আলিকে বিস্তারিত জানান সুষমা।

বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন- দিল্লিতে নিযুক্ত বাংলাদেশ হাই কমিশনার সৈয়দ মোয়াজ্জেম আলীসহ দুই দেশের সংশ্লিষ্ট মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তারা।

দিল্লিতে তৃতীয় ‘রাইসিনা ডায়লগ-২০১৮’ এ যোগ দিতে ভারত সফরে আছেন বাংলাদেশের পররাষ্ট্রমন্ত্রী আবুল হাসান মাহমুদ আলি।

পিএনএস/আনোয়ার

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech