‘ধর্মীয় উদ্দেশ্যে প্রাণী জবাই নিষ্ঠুরতা নয়’

  

পিএনএস ডেস্ক : ধর্মীয় উদ্দেশ্যে উৎসর্গের জন্য প্রাণী জবাই নিষ্ঠুরতা নয়- এমনটা উল্লেখ করে ‘প্রাণিকল্যাণ আইন, ২০১৯’ এর খসড়ার চূড়ান্ত অনুমোদন দিয়েছে মন্ত্রিসভা।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে সোমবার তার কার্যালয়ে মন্ত্রিসভার বৈঠকে এ অনুমোদন দেওয়া হয়।

বৈঠকের পর মন্ত্রিপরিষদ সচিব মোহাম্মদ শফিউল আলম সাংবাদিকদের এমনটা জানান।

তিনি বলেন, ১৯২০ সালের পশুর প্রতি নিষ্ঠুরতা নিরোধ আইনের ভিত্তিতে নতুন আইন করা হচ্ছে।

তিনি বলেন, 'খাদ্য হিসেবে ব্যবহারের জন্য প্রাণী জবাইকালে এবং ধর্মীয় উদ্দেশ্যে উৎসর্গকালে যে কোনো ধর্মাবলম্বী ব্যক্তিকর্তৃক নিজস্ব ধর্মীয় আচার অনুযায়ী কোনো কার্যক্রম গ্রহণ করা হলে তাকে নিষ্ঠুরতা হিসেবে গণ্য করা হবে না'।

এ ছাড়া চলাফেরার সুযোগ না দিয়ে কুকুরকে একটানা ২৪ ঘণ্টা বেঁধে বা আটকে রাখলে তা নিষ্ঠুরতা হিসেবে গণ্য হবে জানিয়ে তিনি বলেন, যে জন্য ছয় মাসের জেলের পাশাপাশি গুনতে হবে জরিমানা।

শফিউল আলম বলেন, কুকুরকে শরীরচর্চার জন্য চলাফেরার সুযোগ না দিয়ে একটানা ২৪ ঘণ্টা বা বেশি সময় বেঁধে রাখা হলে তা নিষ্ঠুরতা গণ্য হবে'।

তবে যুক্তিযুক্ত প্রয়োজনে ভেটিরিয়ান সার্জনের লিখিত পরামর্শ ও পদ্ধতি অনুসরণ করে কোনো প্রাণীর অজ্ঞান ও ব্যথাহীন মৃত্যু ঘটানো হলে তা অপরাধ হিসেবে গণ্য হবে না বলে জানান তিনি।

তিনি বলেন, এই আইন লঙ্ঘন করে অপরাধ করলে বা কোনো অপরাধে সহায়তা করলে ছয় মাসের বিনাশ্রম কারাদণ্ড, ১০ হাজার টাকা জরিমানা বা উভয় দণ্ড দেওয়া হবে।

পিএনএস/জে এ

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech