মঞ্জুর অভিযোগ ৩০ ভোট কেন্দ্র থেকে পোলিং এজেন্টদের বের করে দেয়া হয়েছে

  


পিএনএস ডেস্ক: মঙ্গলবার সকাল ৮টা থেকে একযোগে খুলনা সিটি করপোরেশনের ২৮৯টি কেন্দ্রে ভোটগ্রহণ শুরু হয়েছে। এরই মধ্যে ভোট দিয়েছেন আওয়ামী লীগের মেয়র পদপ্রার্থী তালুকদার আবদুল খালেক।

সকালে নগরীর পাইওনিয়ার বালিকা উচ্চ বিদ্যালয় কেন্দ্রে ভোট প্রদান শেষে কেন্দ্র থেকে বেরিয়ে এসে আবদুল খালেক সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলেন। এ সময় বলেন, জনগণের রায় যে দিকেই যাক না কেন তা মেনে নেব।

অন্যদিকে সকালে বিএনপির মেয়রপ্রার্থী নজরুল ইসলাম মঞ্জু ভোট দিয়েছেন রহিমা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ভোট কেন্দ্রে। ভোট কেন্দ্র থেকে বেরিয়ে এসে তিনি ২৫-৩০ ভোট কেন্দ্র থেকে পোলিং এজেন্টদের বের করে দেয়ার অভিযোগ করেছেন দ্রুত কার্যকর ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য তিনি নির্বাচন কমিশনের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন।

এর আগে প্রয়াত বাবা-মায়ের প্রতি শ্রদ্ধা জনিয়েছেন বিএনপির মেয়রপ্রার্থী নজরুল ইসলাম মঞ্জু। সকাল সাড়ে সাতটার দিকে নগরীর টুথপাড়া কবরস্থানে যান তিনি।

সেখানে বাবা মায়ের আত্মার শান্তি কামরায় দোয়ার পাশাপাশি এবং মোনাজাত করেন মঞ্জু। এ সময় তার সঙ্গে দলের নেতা-কর্মীদের পাশাপাশি ছিলেন বেশ কয়েকজন স্বজন।

মঙ্গলবার খুলনার আলোচিত এই নির্বাচনে ভোট শুরু হয় সকাল আটটায়। চলবে বিকাল চারটা পর্যন্ত। তার আগে থেকেই ভোটাররা কেন্দ্রে লাইন ধরেন।

ভোটকে ঘিরে খুলনায় ব্যাপক উৎসাহ উদ্দীপনা বিরাজ করছে। সকালে ভোট শুরুর আগেই কেন্দ্রে কেন্দ্রে শুরু দেখা যায় ভোটারদের লাইন।

নির্বাচনে মঞ্জুর প্রতিদ্বন্দ্বী মোট চার জন। তবে তার প্রধান প্রতিদ্বন্দ্বী আওয়ামী লীগের তালুকদার আবদুল খালেক। নৌকা মার্কার খালেকের মতো ধানের শীষের মঞ্জুও ভোটে নিশ্চিত জয়ের আশা করছেন।

তবে গত ২৪ এপ্রিল ভোটের প্রচার শুরুর পর থেকেই মঞ্জু তার কর্মী-সমর্থকদের হয়রানি করার অভিযোগ এনেছেন পুলিশের বিরুদ্ধে। ভোটের আগের রাতেও রিটার্নিং কর্মকর্তা ইউনুচ আলীর কাছে এই অভিযোগ করে খুলনার পুলিশ কমিশনার হুমায়ুন কবির এবং মহানগরের পাঁচ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তাকে প্রত্যাহারের দাবি জানিয়েছেন।

মঞ্জুর প্রধান প্রতিদ্বন্দ্বী তালুকদার আবদুল খালেক অবশ্য মঞ্জুর এসব অভিযোগ তাদের ট্র্যাডিশন বা ঐতিহ্য বলে মন্তব্য করেছেন।

পিএনএস/আনোয়ার

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech