এটা বাংলাদেশ বনাম হাথুরু নয়!

  

পিএনএস ডেস্ক : দুপুরে উইকেট দেখে বিসিবি একাডেমি মাঠে যাওয়ার পথে চন্ডিকা হাথুরুসিংহকে ঘিরে বাংলাদেশের সাংবাদিকদের জটলা। কেউ লেখার ‘অ্যাঙ্গেল’ পাওয়ার আশায়, কেউ আবার ছবি তুলতে। হাথুরুসিংহকে নিয়ে বাংলাদেশের সংবাদমাধ্যমের কেন এত আগ্রহ, সেটি নতুন করে বলার কিছু নেই। তবে গত কিছুদিনে ‘হাথুরু’ শব্দটা একটু বেশিই উচ্চারিত হচ্ছে।

আজও যেমন হাথুরু প্রসঙ্গ উঠল শ্রীলঙ্কার ব্যাটিং কোচ থিলান সামারাবীরার সংবাদ সম্মেলনে। কয়েক মাস আগে তিনিও হাথুরুসিংহের সঙ্গে ছিলেন বাংলাদেশ দলের ড্রেসিংরুমে। মাশরাফি-সাকিবদের ভেতর-বাহির জানাটা কতটা কাজে দেবে শ্রীলঙ্কাকে—পুরোনো প্রশ্নটা করা হলো সামারাবীরাকে। তাঁর জবাব হাথুরুসিংহের মতোই, ‘মনে হয় না এটা কোনো বাড়তি সুবিধা দেবে। বিশ্ব ক্রিকেটে এখন আর কিছুই গোপন নয়। আপনি ফ্র্যাঞ্চাইজি ক্রিকেট খেলছেন, একই ড্রেসিংরুমে থাকছেন। আমার মনে হয় না বাংলাদেশ হাথুরুসিংহের বিপক্ষে খেলছে। তারা খেলছে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে। এসব কোনো ব্যাপার হবে বলে মনে হয় না।’

মাশরাফি বিন মুর্তজার সংবাদ সম্মেলনেও যথারীতি হাথুরু প্রসঙ্গ এল। বাংলাদেশ ওয়ানডে অধিনায়ক আবারও মনে করিয়ে দিলেন, শ্রীলঙ্কান কোচের অধ্যায়টা ফেলে এসেছেন পেছনে। এখন মাশরাফির চোখ সামনে, ‘পেশাদার ক্রিকেটে এ ধরনের ঘটনা এটাই প্রথম নয়। কদিন আগে যে নিজেদের কোচ ছিল তারই মুখোমুখি হওয়া এটা প্রথম নয়। আমরা এটা অনেক আগেই পেছনে ফেলে এসেছি। যখন তিনি চলে গেছেন তার পরিকল্পনা আমরা পুরোটাই ভুলে গেছি। এখন যারা নতুন কোচ হবে তাদের সঙ্গে আমরা মানিয়ে নেওয়ার চেষ্টা করছি। এখানে তাকে (হাথুরু) নিয়ে আর ভাবার সুযোগই নেই।’

পদত্যাগের খবর প্রকাশের পর গত দুই মাসে এতবার হাথুরুর নাম উচ্চারিত হয়েছে, তাতে শ্রীলঙ্কান কোচের প্রসঙ্গটা ক্লিশেই মনে হবে। তবুও হাথুরুসিংহে চলে আসছেন সামনে, কাল শুক্রবার প্রথমবারের মতো তাঁর দল শ্রীলঙ্কার মুখোমুখি যে বাংলাদেশ!


পিএনএস/জে এ /

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech