মেসিকে নিয়ে যে অনিশ্চয়তায় ভুগছে আর্জেন্টিনা!

  

পিএনএস ডেস্ক : চলতি বছরের বাকি কয়েক মাসে মোট চারটি আন্তর্জাতিক প্রীতি ম্যাচ খেলবে আর্জেন্টিনা ফুটবল দল। আগামী মাসে যুক্তরাষ্ট্রে অনুষ্ঠিতব্য ম্যাচ দুটিতে প্রতিপক্ষ গুয়েতেমালা ও কলম্বিয়া। বছরের শেষ দিকে দুটি প্রীতি ম্যাচের প্রতিপক্ষ ও ভেন্যু এখনো ঠিক হয়নি; কিন্তু সমস্যাটা হয়েছে অন্যখানে। এই চার ম্যাচের কোনটিতে দলের প্রাণভোমরা লিওনেল মেসিকে পাচ্ছে না দল।

ঠিক আবার কবে জাতীয় দলের সাথে যোগ দেবেন লিও, সেটাও স্পষ্ট করে বলতে পারছেন না কেউ। যার ফলে প্রশ্ন উঠেছে আর্জেন্টিনা দলের সাথে মেসির ভবিষ্যত সম্পর্ক নিয়ে। আর্জেন্টিনার দৈনিক ক্লারিন পত্রিকা তো লিখেই দিয়েছে, ‘মেসি এ বছর আর ফিরবেন না জাতীয় দলে। এমনকি তার ভবিষ্যত নিয়েও সন্দেহ আছে’।

বিশ্বকাপে ভরাডুবির পর বিদায় নিয়েছেন কোচ জর্জ সাম্পাওলি। তার জায়গায় অস্থায়ী কোচ হিসেবে দায়িত্ব দেয়া হয়েছে লিওনেল স্কালোনিকে। আগামী মাসে দল নিয়ে প্রথম অ্যাসাইনমেন্টে বের হবেন নতুন এই কোচ; কিন্তু সেখানেই পাবেন না দলের সেরা তারকাকে।

আগামী ৭ সেপ্টেম্বর লস অ্যাঞ্জেলেসে মধ্য আমেরিকার দেশ গুয়েতেমালার মুখোমুখি হবে আর্জেন্টিনা, চার দিন পর নিউ ইয়র্কে তাদের প্রতিপক্ষ লাতিন আমেরিকার দেশ কলম্বিয়া। দুটি ম্যাচেই পাঁচ বারের ব্যালন ডি’অর জয়ী তারকাকে ছাড়া মাঠে নামতে হবে দলকে। পাওয়া যাবে না বছরের শেষ দুটো ম্যাচেও।

আর্জেন্টিনার নিউজ ওয়েবসাইট ইনফোবে অবশ্য বলছে, ‘তিনি(মেসি) বিশ্রামে থাকবেন, তার অর্থ এই নয় যে অবসর নিচ্ছে’। দলের একজন মুখপাত্র ফরাসি বার্তা সংস্থা এএফপিকে বলেছে, ‘কোচই বলতে পারবেন মেসি কবে ফিরবেন। মেসিকে নিয়ে যে উদ্বেগ তৈরি হয়েছে সেটির সম্পর্কে সঠিক তথ্য জানা আছে তারই’।

এই কথারও বিভিন্ন অর্থ করতে শুরু করেছে সংবাদ মাধ্যম। এদিকে আর্জেন্টিনার সাবেক তারকা ফুটবরার কার্লোস তেভেজ বলেছেন, ‘এটি নিছকই ব্যক্তিগত ব্যাপার। লিওকে এ বিষয়ে ভাবতে সময় দিতে হবে।’ বার্সেলোনার সাথে প্রীতি ম্যাচ খেলতে বর্তমানে আর্জেন্টিনার বোকা জুনিয়র্সের হয়ে স্পেনে অবস্থান করছেন তেভেজ। সেখানেই তিনি সংবাদ মাধ্যমকে বলেছেন এসব কথা।

তেভেজ বলেন, ‘এটি বোধগম্য.....এমনকি সে যদি আর নাও ফিরে আসে। আন্তর্জাতিক ফুটবলে সে ভালো খেলুক আর খারাপ খেলুক, আমরা তাকে নিয়ে সমালোচনায় মেতেছি। এটি দল ও তার নিজের জন্য কোন ইতিবাচক দিক নয়। এরকম পরিস্থিতির মধ্য দিয়ে আমাকেও যেতে হয়েছে, তাই বুঝি বিষয়টা।’

আর্জেন্টিনার হয়ে ১২৮ ম্যাচে ৬৫ গোল করেছেন মেসি। ক্লাব ফুটবলে তার ঈর্ষণীয় সাফল্য থাকলেও দেশের হয়ে কখনও বড় কোন শিরোপা জিততে পারেননি তিনি। ২০১৪ বিশ্বকাপের ফাইনালে শেষ মূহুর্তের গোলে হারতে হয়েছে জার্মানির কাছে। ২০১৬ সালে কোপা আমেরিকার ফাইনালে চিলির কাছে হারের পর আন্তর্জাতিক ফুটবলকে বিদায় জানিয়েছিলেন মেসি। দুই মাস পরে অবশ্য সেই সিদ্ধান্ত থেকে সরে আসেন। সূত্র : দ্য নিউজ

পিএনএস/এএ

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech