নেইমারের গোলে উরুগুয়ের হার

  

পিএনএস ডেস্ক: ব্রাজিলের জার্সি গায়ে নেইমার কোথায় গিয়ে থামবেন সেটি হয়তো সময়েই বলে দিবে, তবে ইতোমধ্যে তিনি যে গোল সংখ্যার দিক দিয়ে ফুটবল ইতিহাসের সেরা স্ট্রাইকার রোনালদোর খুব সামনে চলে এসেছেন সেটিই এখন বাস্তব। আন্তর্জাতিক প্রীতি ম্যাচে নেইমারের দেওয়া একমাত্র গোলেই দুই বারের বিশ্ব চ্যাম্পিয়ন উরুগুয়েকে হারায় ব্রাজিল।

ম্যাচ শুরুর আগেই বন্ধুর মিলন মেলায় পরিণত হয় প্রীতি ম্যাচটি। নেইমারের সাবেক ক্লাব বার্সেলোনার খেলোয়াড় সুয়ারেজ এবং নেইমার নিজে এদিন অধিনায়কের আর্মব্যান্ড হাতে মাঠে নামেন। নেইমারের বর্তমান ক্লাব সতীর্থ কাভানিও খেলেন ম্যাচটি। তাই সবদিক দিয়ে বন্ধুকে মাঠের লড়াইয়ে হারিয়ে দেওয়ার আনন্দে ভাসতেই পারেন নেইমার।

মাঠের খেলাতে অবশ্য দু'দলের লড়াইয়ে ছিল ভারসাম্যহীনতার অভাব। ব্রাজিলের একের পর এক আক্রমণের বিপরীতে বেশিরভাগ সময়েই রক্ষনাত্মক কৌশলে খেলতে থাকে উরুগুয়ে। ১২ মিনিটে ফিলিপে লুইসের ক্রসে নেইমার গোল করলেও সেটি অফসাইডের কারণে বাতিল হয়। ২৪ মিনিটে দানিলোর ভুলে ডিবক্সে বল পেয়ে সুয়ারেজের শট কর্নারের বিনিময়ে রক্ষা ব্রাজিলকে বাঁচান গোলরক্ষক এলিসন।

প্রথমার্ধের একদম শেষ সময়ে গোলের সবচেয়ে সহজ সুযোগ নষ্ট করেন সুয়ারেজ। কাভানির কাছ থেকে ডি বক্সের ভেতর এলিসনকে একা পেয়েও গোল করতে ব্যর্থ হন এই বার্সা তারকা।

গোলশূন্য প্রথমার্ধের পর দ্বিতীয়ার্ধে বেশ গোছালো ফুটবল উপহার দিতে থাকে ব্রাজিল। তবে সুয়ারেজ একাই যেন সব আক্রমণ করার মিশন নিয়ে নামেন এদিন। ৫ক মিনিটে ব্রাজিলের দুই ডিফেন্ডারকে কাটিয়ে বক্সের ভেতর ঢুকলেও এলিসনকে পরাস্ত করতে পারেননি।

শেষ পর্যন্ত ৭৬ মিনিটে আসে কাঙ্ক্ষিত সেই মুহূর্ত। ব্রাজিলিয়ান ডিফেন্ডার দানিলোকে ডিবক্সের ভেতর ফাউল করে ব্রাজিলকে পেনাল্টি উপহার দেন লাজাল্ট। স্পট কিক থেকে ব্রাজিলের জার্সি গায়ে ৬০তম গোলটি করেন নেইমার। ৬২ গোল করে তার হাতের নাগালেই রয়েছেন রোনালদো।

শেষ দিকে উরুগুয়েকে কয়েকটি বিক্ষিপ্ত আক্রমণ করলেও ওই ১-০ গোলের হার নিয়েই মাঠ ছাড়তে হয় তাবারেজের দলকে। অন্যদিকে, দারুণ এক জয়ে প্রীতি ম্যাচটিকে স্মরণীয় করে রাখলো নেইমার এবং ব্রাজিল।

পিএনএস/হাফিজুল ইসলাম

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech