যেখানে ভুলেও স্মার্টফোন রাখা ঠিক নয়

  

পিএনএস ডেস্ক:আমাদের জীবনযাপনের নিত্যসঙ্গী মোবাইল ফোন। আমরা অনেকেই মোবাইল ব্যবহার করি। যখন যেখানে খুশি মোবাইল রেখে দেই। প্রয়োজনীয় এই ডিভাইসটির ক্ষেত্রে কিছু সতর্কতাও অবলম্বন করাটা জরুরি। তবে সব স্থানে মোবাইল রাখা ঠিক নয়। চলুন তাহলে জেনে নেই যেসব স্থানে মোবাইল রাখা ঠিক নয়।

রান্নাঘরে: রান্নাঘরে আগুনের কাছাকাছি স্মার্টফোন রাখা ঠিক নয়। অনেকে রান্নার সময় ফোনটি চুলার পাশেই রেখে দেন কিংবা কথা বলতে থাকেন। যা খুবই ঝুঁকিপূর্ণ।

প্যান্টের পকেটে: প্যান্টের পকেটে নিয়মিত যারা ফোন রাখেন, ফোনের সিগন্যালে তাদের শরীরের কোষে নেতিবাচক প্রভাব পড়ার আশঙ্কা থাকে। প্যান্টের পেছনের পকেটেও ফোন রাখা ঠিক নয়, কারণ পেছনের পকেটে ফোন রাখা অবস্থায় কখনো আনমনে কোথাও বসে পডলে, ফোন ক্ষতিগ্রস্ত হওয়ার আশঙ্কা থাকে।

বালিশের নিচে: বালিশের নিচে বা ভারী বইয়ের নিচে স্মার্টফোন রাখা উচিত নয়। বিশেষ করে চার্জ দেওয়া অবস্থায় তো কখনোই এমনটা উচিত নয়। কেননা বেশি উত্তপ্ত হয়ে ফোন বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটতে পারে।

সমুদ্র সৈকত বা সুইমিং পুলে: এসব জায়গায় বেশিক্ষণ সূর্যের সরাসরি উত্তাপে ফোন নষ্ট হওয়া অস্বাভাবিক নয়। ফোনে থাকা কিছু মেটাল দীর্ঘক্ষণ প্রখর রোদের উত্তাপে থাকলে, অকেজো হতে পারে।

হাতে গ্লাভস পরে ফোনের ব্যবহার নয়: হাতে গ্লাভস পরে থাকা অবস্থায় ফোনের কিপ্যাড বেশি চাপবেন না। উলের মতো নেগেটিভলি চার্জড ম্যাটেরিয়ালের সংস্পর্শে এলেই ফোন গরম হয়ে যায়। ব্যাটারির আয়ু কমে যাবে।

ধাতব সংস্পর্শ এড়িয়ে চলুন: মোবাইল ফোনের ব্যাটারি ক্রোমিয়াম, আর্সেনিক বা প্যালাডিয়ামের মতো কিছু ধাতুর সংস্পর্শে এলে, তাতে ক্ষয় শুরু হয়ে যায়। কিছু ক্ষেত্রে শর্ট সার্কিট হওয়াটাও অসম্ভব নয়। সুতরাং সাবধানের মার নেই।

পিএনএস/আলআমীন

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech