মুন্সীগঞ্জে গ্রেপ্তারের পর ‘বন্দুকযুদ্ধে’ যুবক নিহত

  


পিএনএস, মুন্সীগঞ্জ: মুন্সীগঞ্জ সদরে পুলিশ সঙ্গে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ এক ব্যক্তি নিহত হয়েছেন। বুধবার দিবাগত রাত দেড়টার দিকে চর হায়দ্রাবাদ এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

বৃহস্পতিবার সকালে সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. আলমগীর হোসেন এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

নিহত সাইফুল ইসলাম আরিফ (৩৭) সদর উপজেলার মুক্তারবাড়ী এলাকার বাসিন্দা। তিনি ‘বাবা আরিফ’ নামেও পরিচিত ছিলেন। মাস ছয়েক আগে তার আপন ভায়রা ভাই শাহজালালও তথাকথিত বন্দুকযুদ্ধে নিহত হন।

‘বন্দুকযুদ্ধ’ সম্পর্কে ওসির দাবি, গত মঙ্গলবার গভীর রাতে আরিফকে গ্রেপ্তার করা হয়। এ সময় তার কাছ থেকে ১০০ ইয়াবা উদ্ধার করা হয়।

‘বুধবার রাতে আরিফের দেওয়া তথ্য অনুযায়ী, তাকে নিয়ে গজারিয়াকান্দি এলাকা থেকে চর হায়দ্রাবাদ যাওয়া হয়। এ সময় সেখানে ওত পেতে থাকা আরিফের সহযোগীরা পুলিশকে লক্ষ্য করে গুলি করে। আত্মরক্ষার্থে পুলিশও পাল্টা গুলি চালায়।’

ওসির আরো দাবি, এ সময় আরিফ দৌড়ে পালানোর চেষ্টা করলে তার শরীরে গুলি লাগে। পরে আরিফকে মুন্সীগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালে নেওয়া হলে চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন। ঘটনাস্থল থেকে একটি বিদেশি পিস্তল, আটটি গুলি, একটি গুলির খোসা ও চাপাতি উদ্ধার করা হয়।

ময়নাতদন্তের জন্য আরিফের লাশ মুন্সীগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালের মর্গে রাখা হয়েছে বলে জানান ওসি।

পিএনএস/আনোয়ার

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech