উত্তাল ঢেউয়ে বঙ্গোপসাগরে ট্রলারডুবি

  



পিএনএস ডেস্ক: কুয়াকাটা সংলগ্ন বঙ্গোপসাগরে ভয়াল উত্তাল ঢেউয়ের তোড়ে ১৬ জেলেসহ ভারতীয় সীমানায় ডুবে গেছে মহিপুর মৎস্য বন্দরের তোতা মিয়ার এফবি ইসরাত জাহান ফিশিং ট্রলার।

ভারতীয় জেলেরা ১৫ জেলেকে উদ্ধারের খবর নিশ্চিত করেছে। তবে শহীদ আলম নামের এক জেলে নিখোঁজ রয়েছে। ট্রলারডুবির পরে জেলেদের অন্য ট্রলারে উদ্ধার করা হয়েছে। বর্তমানে তারা ভারতে অবস্থান করছে।

এছাড়া ধুলাসারের নতুনপাড়া গ্রামের এফবি সাজেদা ট্রলারের তলা ঢেউয়ের ঝাপটায় ফেটে ডুবে গেছে।
মাঝি ফরিদউদ্দিন জানান, প্রচণ্ড ঢেউয়ের তোড়ে বডি ফেটে ট্রলারটি ডুবে গেলে তারা সাগরে ভাসছিল। অপর একটি ট্রলার তাদের ১৮ জনকে উদ্ধার করে নিয়ে আসে। মালিক বশার মোল্লা জানান, তার অন্তত ৩০ লাখ টাকার ক্ষতির শঙ্কা রয়েছে।

অপরদিকে ১৭ জেলেসহ হাবিব খলিফার একটি ট্রলার নিখোঁজ রয়েছে। মাঝি আব্দুর রহিমের সঙ্গে যোগাযোগের চেষ্টা করেও নিশ্চিত হতে পারেননি যে আদৌ এসব জেলেরা ট্রলারসহ কোথাও রয়েছেন। কিংবা বেঁচে আছেন।

সাগর থেকে ফিরে আসা ট্রলার মাঝি ফোরকান জানান, সাগর এতো বেশি উত্তাল তারা এ বছর আর দেখেননি। বৃহস্পতিবার রাতে এসব ট্রলার কিনারে ফিরতে গিয়ে কেউ দিকহারা হয়ে বিপথে গিয়ে এমন দুর্ঘটনায় পড়েছে।

মহিপুর আলীপুর সংলগ্ন শিববাড়িয়া চ্যানেলে এখন হাজারো ফিশিং ট্রলার নিরাপদ আশ্রয়ে রয়েছে। তবে ১৮ জেলেসহ একটি ট্রলার নিখোঁজ থাকা এবং একটি ট্রলারডুবির ঘটনায় কলাপাড়ার জেলেদের মধ্যে বিরাজ করছে উৎকণ্ঠা। ট্রলার মালিকরা শুধু মাঝির নাম বলতে পারলেও নিখোঁজ জেলেদের নাম জানাতে পারেননি।

মহিপুর ফিশিং বোট ও আড়ৎ মালিক সমিতির সভাপতি গাজী ফজলুর রহমান জানান, ভারতীয় জেলেরা উদ্ধার করেছে ১৫ জেলেকে এটি তারা নিশ্চিত হয়েছেন। তিনি ফিরে আসা জেলে এবং বোটের মাঝিদের উদ্ধৃতি দিয়ে জানান, জেলেরা কখনও এমন ভয়াল উত্তাল সাগর আগে দেখেননি।

পিএনএস/হাফিজুল ইসলাম

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech