পটুয়াখালীতে একজনকে ভালবেসে দুই বোনের আত্মহত্যা

  

পিএনএস ডেস্ক : খালাতো ভাইয়ের সঙ্গে শোভার (১২) প্রেমের সম্পর্কে গড়ে ওঠে। কিন্তু শোভার অজান্তে তার ফুফাতো বোন রোজিনার (১১) সঙ্গেও সেই খালাতো ভাই প্রেমের সম্পর্ক শুরু করে। এই প্রতারণার বিষয়টি দুই বোন জানতে পারে। পরে অভিমান দুইবোন একসঙ্গে প্রাণ দেয়। তারা পোকামাড়ারের বিষ খেয়ে আত্মহত্যা করে। শুক্রবার রাতে পটুয়াখালীর রাঙ্গাবালী উপজেলার চরমোন্তাজ ইউনিয়নের দারভাঙা গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

স্থানীয় লোকজন জানান, নিহত শোভা আক্তার উপজেলার চরমোন্তাজ ইউনিয়নের দারভাঙা গ্রামের মহসিন চৌকিদারের মেয়ে ও নিহত রোজিনা আক্তার গলাচিপা উপজেলার পানপট্টি এলাকার বিপুল মৃধার মেয়ে। তারা সম্পর্কে চাচাতো বোন। এদের মধ্যে শোভা চরমোন্তাজ সিদ্দিকীয়া দাখিল মাদ্রাসায় ষষ্ঠ শ্রেণিতে পড়তো।

স্থানীয় লোকদের দাবি, শোভার সঙ্গে একই গ্রামের তার আপন খালাতো ভাই শামিমের দীর্ঘদিন ধরে প্রেমের সম্পর্ক ছিল। এর ফাঁকে শোভার ফুফাতো বোন রোজিনার সঙ্গেও শামিম প্রেমের সম্পর্ক গড়ে তোলে। এক পর্যায়ে এই প্রতারণা বিষয়টি শোভা ও রোজিনা জানতে পারে। এই অভিমানে তারা দুইজনেই সকলের অগোচরে পোকামাড়ার বিষ খায়।

গুরুতর আহত অবস্থায় তাদের হাসপাতালে নেওয়ার পথে দুজনই মারা যায়। তবে নিহত শোভা ও রোজিনার পরিবার সদস্যদের দাবি, শোভা ও রোজিনার সঙ্গে শামীমের প্রেমের সম্পর্ক ছিল কিনা তাদের জানা নেই।

এ ব্যাপারে রাঙ্গাবালী থানার ওসি মিলন কৃষ্ণ মিত্র বলেন, ‘ঘটনাস্থল থেকে লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য পটুয়াখালী মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে। তবে কি কারণে তারা আত্মহত্যা করেছে, তা এখনও নিশ্চিতভাবে বলা যাচ্ছে না।

পিএনএস/মোঃ শ্যামল ইসলাম রাসেল

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech