বরগুনায় এবার কুপিয়ে হাবিবকে হত্যা চেষ্টা

  


পিএনএস ডেস্ক: বহুল আলোচিত বরগুনার রিফাত শরীফ হত্যাকাণ্ডের রেশ কাটতে না কাটতেই আরেক যুবকের গলায় ধারালো অস্ত্র দিয়ে আঘাত করেছে দৃর্বৃত্তরা। শনিবার (১০ আগস্ট) রাত ৮টার দিকে বরগুনার বামনা উপজেলার গোলাঘাটা কড়ইতলা এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

গুরুতর আহত এই যুবক বামনার রামনা ইউনিয়নের গোলাঘাটা কড়ইতলা গ্রামের আবদুর রউফের ছেলে মো. হাবিব (২২)।

স্থানীয়রা হাবিবকে উদ্ধার করে বামনা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে আসলে কর্তব্যরত চিকিৎসক উন্নত চিকিৎসার জন্য তাকে বরিশাল শেরে-ই বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠিয়ে দেন।

গত ২৬ জুন বরগুনা সরকারি কলেজের সামনে প্রায় একইভাবে গলায় ধারালো অস্ত্র দিয়ে রিফাত শরীফকে আঘাত করে বন্ড বাহিনী।

পুলিশ ও স্থানীয়রা জানান, ঈদুল আজহা উপলক্ষে শনিবার (১০ আগস্ট) বিকেলে ঢাকা থেকে বাড়ি ফিরেছেন হাবিব। রাত আটটার দিকে কে বা কারা তাকে বাড়ি থেকে ডেকে বাইরে নিয়ে যায়। পরে বাড়ির পাশ্র্ববর্তী ধানক্ষেতে নিয়ে হাবিবকে ধারালো অস্ত্র দিয়ে জবাই করার চেষ্টা করে। এ সময় হাবিবের চিৎকার শুনে স্থানীয়রা এগিয়ে আসলে রক্তাক্ত অবস্থায় হাবিবকে ধানক্ষেতে ফেলে পালিয়ে যায় দুর্বৃত্তরা।

তবে হাবিবের স্বজনরা জানান, হাবিবের বড় ভাইয়ের সঙ্গে শত্রুতার জেরে তাদের প্রতিবেশী মোসলেম মল্লিকের ছেলে ধলু ও তার সহযোগীরা তাকে বাড়ি থেকে ডেকে নিয়ে হত্যার চেষ্টা করে।

হাবিবের অবস্থা আশঙ্কাজনক জানিয়ে বামনা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের চিকিৎসক ভূপেন চন্দ্র মন্ডল বলেন, তাকে জবাই করার চেষ্টা করা হয়েছে। তার গলায় ধারালো অস্ত্রের মারাত্মক জখম হয়েছে। জখমের ফলে তার গলার অনেকগুলো রগ কেটে যাওয়ায় অতিরিক্ত রক্তক্ষরণ হয়েছে। তাই মুমূর্ষু অবস্থায় তাকে উন্নত চিকিৎসার জন্য বরিশাল শের-ই বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

এ বিষয়ে বামনা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এস এম মাসুদুজ্জামান বলেন, ঘটনার তদন্ত চলছে। দোষীদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে। এ ঘটনায় মামলার প্রস্তুতি চলছে বলেও জানান তিনি।

পিএনএস/ হাফিজুল ইসলাম

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech