বাগেরহাটে কলেজ শিক্ষকের স্ত্রীর মরদেহ উদ্ধার

  


পিএনএস ডেস্ক: বাগেরহাটের মোরেলগঞ্জ এ আর খান ডিগ্রি কলেজের পদার্থবিদ্যা বিভাগের শিক্ষক লিংকন দাসের স্ত্রীর গলায় ফাঁস দেওয়া ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। শনিবার দিবাগত রাত ১ টার দিকে মোরেলগঞ্জের সন্ন্যাসী ফাঁড়ি পুলিশ সন্ন্যাসী বাজারের মিজান সুপার মার্কেটের দ্বিতীয় তলার একটি আবাসিক রুম থেকে তিলত্তমা বাকচি ওরফে তমা বাকচি (২২)-নামে ওই গৃহবধুর মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ।

নিহত তমা বাগেরহাটের খানপুর এলাকার তাপস কুমার বাকচির মেয়ে ও বাগেরহাটের রামপাল উপজেলার কুমলাই গ্রামের সিবানন্দ দাসের ছেলে লিংকন দাসের স্ত্রী ছিলেন। চাকুরির সুবাদে লিংকন স্ত্রী নিয়ে সন্ন্যাসী বাজারে বাসা ভাড়া করে থাকতেন।

নিহত তমার বাবা তাপস বাকচি জানান, জামাই লিংকন আমার মেয়েকে প্রতিনিয়ত শারীরিক ও মানসিক নির্যাত করত। তিনি আত্মহত্যার প্ররোচনার অভিযোগও আনেন জামাইর বিরুদ্ধে। স্থানীয়রা জানান, লিংকন বাসা থেকে বের হলেই দরজায় তালা মেরে যেত।

মোরেলগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) কে এম আজিজুল ইসলাম জানান, সংবাদ পেয়ে পুলিশ গৃহবধূ তমা বাকচির মরদেহ উদ্ধার করেছে। এ ব্যাপারে অপমৃত্যু মামলা হয়েছে। ময়না তদন্তের জন্য মরদেহ বাগেরহাট মর্গে পাঠানো হয়েছে। ময়না তদন্তের রির্পোট পেলেই মৃত্যুও সঠিক কারণ জানা যাবে।

পিএনএস/আনোয়ার

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন