ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় ইসলাম ধর্ম গ্রহণ করায় কাদিয়ানিদের হুমকি

  

পিএনএস, ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা প্রতিনিধি : ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা শহরের কান্দিপাড়ায় কাদিয়ানি ও কওমি শিক্ষার্থীদের মধ্যে উত্তেজনা চলছে। একটি মসজিদ বা মাদ্রাসা নিয়েই এই উত্তেজনার সূত্রপাত। এ নিয়ে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে, হয়েছে আন্দোলন। এর মধ্যেই আনোয়ার নামে কাদিয়ানিদেরই একজন ব্যাক্তি যিনি সম্প্রতি ইসলাম ধর্ম গ্রহন করেছেন, তিনি গত ১৫ জানুয়ারি ব্রাহ্মণবাড়িয়ার জামিয়া ইসলামিয়া মাদ্রাসায় এসে তারা কাদিয়ানিদের দ্বারা বিভিন্ন মানসিক অত্যাচার ও হুমকি-ধামকির কথা আলেম ওলামাদের জানিয়েছেন। এসময় ২ জন মেজিস্ট্রেটও উপস্থিত ছিলেন বলে জানা গেছে। আনোয়ার জানিয়েছেন, তারা ১৭ জন ইসলাম ধর্ম গ্রহন করার পর থেকেই কাদিয়ানীরা চাপ সৃষ্টি, জুলুম ও নির্যাতন করে তাদের। ফলে থানায় জিডি করতে বাধ্য হোন তারা। ইসলাম গ্রহন করা ১৭ জনই কান্দিপাড়ার বাসিন্দা। তিনি বলেন যে, আমরা ১৭ জন তওবা করে ইসলাম ধর্মে ফিরে এসেছি। এর পর থেকেই কাদিয়ানিদের দ্বারা আমরা বিভিন্ন সময় হুমকি-ধামকি পেতে থাকি। আমাদেরকে তারা একঘরে করে রেখেছে। মুসলিম হওয়ার জন্য কাদিয়ানিদের কেউ আমাদের সাথে ঠিক ভাবে কথা বলেনা।

আনোয়ারের বাবার নাম আব্দুল মান্নান, তার বাসা নম্বর ৫০৫ কান্দিপাড়া বলে জানিয়েছেন তিনি।
আনোয়ার কেন কাদিয়ানী ধর্ম থেকে ইসলামে ফিরে এসেছেন এবং তাদের উপর কীভাবে জুলুম নির্যাতন করা হয় এর বর্ণনা দেন।

এ সময় জামিয়া ইউনুছিয়া ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আল্লামা আশেকে এলাহী ইব্রাহিমী, শায়েখ মাওলানা সাজিদুর রহমান সাহেব, মাওলানা মুফতি মোবারক উল্লাহ সাহেব , মাওলানা মুফতী আব্দুর রহীম কাসিমী সাহেব,জামিয়া ইসলামিয়া মদিনাতুল উলুম সোনারামপুর আশুগঞ্জ এর মুহাদ্দিস হাফেজ মাওলানা ইসমাইল ভূঁইয়া ভাদুঘরী ও জেলার দুইজন ম্যাজিস্ট্রেট উপস্থিত ছিলেন।

পিএনএস/মোঃ শ্যামল ইসলাম রাসেল

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech