‘উইশ’ খ্যাত প্রতিযোগী লাবণীর গোপন বিয়ে ফাঁস!

  

পিএনএস ডেস্ক : একটি ভালো উদ্যোগ নিয়ে আবারও বিতর্ক সামনে চলে আসায় অনেকেই লজ্জায় মুখ ঢাকছেন। বিশেষ করে এবারের দ্বিতীয় আসরে জয়ের মুকুট ওঠে দক্ষিণের জেলা পিরোজপুরের জান্নাতুল ফেরদৌস ঐশীর মাথায়।

প্রতিযোগিতার অন্যতম কনটেস্ট্যান্ট আফরিন সুলতানা লাবণীকে নিয়ে কেঁচো খুঁড়তে গিয়ে সাপ বেড়িয়ে এসেছে। মিস ওয়ার্ল্ডে অংশ নেয়া এই লাবণী বিবাহিত! তার স্বামীর নাম আতাউর রহমান আতিক। এই অভিযোগ করেন স্বয়ং লাবণীর সাবেক স্বামী আতাউর। তারা জামালপুর সদর বাগেরহাটা কলেজ রোডের বাসিন্দা।

ব্যবসার পাশাপাশি কয়েকটি মিউজিক ভিডিওতেও মডেল হয়েছেন তিনি। জামালপুর কোর্টে গিয়ে ২০১৪ সালের ১৮ আগস্ট বিয়ে করেছিলেন তারা। দুই বছর সংসার করার পর ২০১৬ সালের ১৭ মে ডিভোর্স হয়। ডিভোর্সের পর লাবণীর নামে দু’টি চুরির মামলাও হয়। মামলাগুলো এখনও নিষ্পত্তি হয়নি। গণমাধ্যমে তাদের বিয়ের কাবিননামা ও মামলার কাগজ প্রকাশিত হয়েছে।

এ প্রসঙ্গে লাবণীর সাবেক স্বামী আতাউর রহমান আতিক অভিযোগ করে বলেন, ২০১২ সালের শেষের দিকে তাদের পরিচয় ও প্রেম। তখন আতাউর ঢাকায় থাকতেন। লাবণীর মায়ের চিকিৎসা আর ওর পিছনে জলের মত টাকা ব্যয় করেছেন তিনি। রাজধানীর চকবাজারে সামসুল হক টাওয়ারে ওর নামে আফরিন এস এল এন্টারপ্রাইজ আতাউরের দুটি দোকান থাকলেও এখন নেই।

আতাউর জানান, সে আমার অনেক টাকা নিয়ে পালিয়ে যায়। ওর নামে চুরির মামলাও করেছি। মামলার এখন চার্জশিট হচ্ছে। এখন সে ছাত্রলীগের জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যায় শাখার সাংগঠনিক সম্পাদক। ক্ষমতার প্রভাব খাটিয়ে ২০১৬ সালের মামলা ২০১৮ পর্যন্ত নিয়ে এসেছে।

গত ৩০ সেপ্টেম্বর বসুন্ধরা কনভেনশন সেন্টারে জাঁকজমক আয়োজনে মিস ওয়ার্ল্ড বাংলাদেশ ২০১৮ এর গ্র্যান্ড ফিনাল আসরের পর্দা নামার পর থেকেই নানা বিতর্ক মাথাচাড়া দিয়ে উঠছে। ফাইনাল রাউন্ডে বিচারকদের প্রশ্ন করা, প্রতিযোগীদের হাস্যকর উত্তর নিয়েও কম আলোচনা হচ্ছে না।

এর আগে গত বছর বিয়ের খবর গোপন করে ‘মিস ওয়ার্ল্ড বাংলাদেশ’ প্রতিযোগিতায় অংশ নিয়েছিলেন জান্নাতুল নাঈম এভ্রিল। চ্যাম্পিয়নের মুকুটও প্রথমে উঠেছিল তার মাথায়। কিন্তু গ্র্যান্ড ফিনালের পর দিনই বিয়ের খবর প্রকাশ হওয়ায় কেড়ে নেয়া হয় এভ্রিলের মুকুট। নতুন ‘মিস ওয়ার্ল্ড বাংলাদেশ’ হিসেবে পুরান ঢাকার মেয়ে জেসিয়া ইসলামের নাম ঘোষণা করা হয়।

পিএনএস/এএ

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech