নিখোঁজের ৭ দিন পর ব্যবসায়ীর লাশ উদ্ধার, আটক ৫ - মফস্বল - Premier News Syndicate Limited (PNS)

নিখোঁজের ৭ দিন পর ব্যবসায়ীর লাশ উদ্ধার, আটক ৫

  

পিএনএস ডেস্ক : কুমিল্লার লাকসাম থেকে নিখোঁজ স্বর্ণ ব্যবসায়ীর লাশ পাওয়া গেছে। আজ বুধবার ভোরে নোয়াখালীর চাটখিল উপজেলার খিলপাড়া ইউনিয়নের পশ্চিম দেলিয়াই গ্রামের একটি পুকুর থেকে লাশটি উদ্ধার করে পুলিশ। গত ৭ই ফেব্রুয়ারি তিনি নিখোঁজ হন।

পুলিশ জানায়, গত ৭ই ফেব্রুয়ারি স্বর্ণ ব্যবসায়ী নিতাই দেবনাথ লাকসাম উপজেলার হাশিরপাড় বাজার থেকে তিথি শিপ্লালয়ে যাওয়ার পথে নিখোঁজ হয়। নিতাই দেবনাথের বড় ভাই গৌরাঙ্গ দেবনাথ লাকসাম থানায় একটি জিডি করে। বুধবার সন্ধ্যায় তিথি শিল্পালয়ের পাশের দোকান মা-বোডিং ষ্টোর এর মালিক বেলাল (৩২) কে সন্দেহ জনকভাবে পুলিশ আটক করে।


আটক বেলাল পুলিশের নিকট নিতাই দেবনাথকে হত্যা করার কথা স্বীকার করে। আটক বেলালের বাড়ী চাটখিল উপজেলার খিলপাড়া ইউনিয়নের অমরপুর গ্রামে। তার স্বীকারোক্তি অনুযায়ী পুলিশ একই ইউনিয়নের সংকরপুর গ্রামের লিটনকে গ্রেপ্তার করে। এ ছাড়া পুলিশ লাকসাম থেকে মিলন, সাইফুল ইসলাম জুয়েল ও জুয়েল নামের ৩ জনকে গ্রেপ্তার করেছে।

গ্রেপ্তারকৃদের তথ্য মতে লাকসাম থানার ওসি আবদুল্লাহ আল মাতফুজ এর নেতৃত্বে একদল পুলিশ চাটখিল থানা পুলিশের সহায়তায় চাটখিলের পশ্চিম দেলিয়াই থেকে নিতাই দেবনাথের লাশ উদ্ধার করেছে। আটক বিল্লাল জানায়, পাশের ব্যবসায়ী হিসেবে নিতাইর সাথে তার টাকা পয়সার লেনদেন ছিল।

নিতাই তার নিকট থেকে পাওয়া টাকা দাবি করায় ক্ষিপ্ত হয়ে বেলাল তাকে হত্যার পরিকল্পনা করে। বেলাল জানান, গত বুধবার নিতাইকে কৌশলে তার বাড়ী চাটখিলে নিয়ে আসে। আর বুধবার রাতেই বেলাল, লিটনসহ অন্যরা তাকে পিটিয়ে ও পরে শ্বাসরোধ করে হত্যা করে লাশ বাড়ীর পার্শ্বের পুকুরে বালুর বস্তার সাথে বেধে ফেলে দেয়। নিতাইকে হত্যার পর বেলাল তার ব্যবসা প্রতিষ্ঠান মা-বেডিং ষ্টোরে স্বাভাবিক ভাবে ব্যবসা করছিল।

পিএনএস/জে এ /মোহন

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech