ইসলাম

মহানবী (সা.) যেসব খাবার পছন্দ করতেন

  

পিএনএস ডেস্ক : সর্বকালের সর্বশ্রেষ্ঠ মানব প্রিয় নবী হজরত মুহাম্মদ (সা.) যেসব খাবার গ্রহণ করেছেন, তা ছিল সর্বোচ্চ স্বাস্থ্যসম্মত ও পুষ্টিগুণে সমৃদ্ধ। আজকের বিজ্ঞানের গবেষণা-এষণায় বিমূর্ত হচ্ছে রাসুল (সা.)-এর খাবারগুলোর গুণাগুণ ও মানবদেহের জন্য সেগুলোর প্রয়োজনীয়তা।নিম্নে সংক্ষেপে রাসুল (সা.)-এর কিছু খাবারের আলোচনা বিধৃত হলো।পনির : হজরত আবদুল্লাহ ইবনে ওমর (রা.) থেকে বর্ণিত, তাবুকের যুদ্ধে রাসুল (সা.)-এর কাছে কিছু পনির উপস্থাপন করা হয়। রাসুল (সা.) বিসমিল্লাহ পড়ে একটি চাকু দিয়ে সেগুলো কাটেন

শরীর সুস্থ রাখে প্রার্থনা!

  

পিএনএস ডেস্ক: জীবন মানে কখনও সুখের নরম স্পর্শ পাওয়া, আবার কখনও দুঃখের জোয়ারে ভেসে যাওয়া। এই নিয়েই তো আমাদের রোজের জীবন।কিন্তু এসবের মাঝেও আমরা শান্ত থাকি, আনন্দে থাকি, কারণ এক অদৃশ্য শক্তি আমাদের মনের জোরকে বাড়িয়ে চলে, যে শক্তির নাম কারও কাছে আল্লাহ্‌, কারো কাছে ভগবান।একাধিক গবেষণায় দেখা গেছে প্রার্থনা করার সময় আমাদের মস্তিষ্ক এবং শরীরের অন্দরে এমন কিছু পরিবর্তন হতে থাকে যে ধীরে ধীরে ব্রেন এবং দেহের শক্তি বাড়তে শুরু করে।বেশ কিছু বছর আগে ক্লিনিকাল ফিজিওলজির বিখ্যাত প্রফেসর ডাঃ

বিশ্বনবী কেন আরব দেশে এসেছেন?

  

পিএনএস ডেস্ক: মহানবী (সা.)-কে বিশ্ব মানবতার উদ্দেশে পাঠানো হয়েছে। তিনি যেমন আরবের নবী, তেমনি আমেরিকার নবী, তেমনি আফ্রিকার নবী, তেমনি বাংলাদেশের নবী, তেমনি ভারতের নবী, তেমনি চীনের নবী।তিনি গোটা বিশ্বের নবী। ইরশাদ হয়েছে, 'পরম কল্যাণময় তিনি, যিনি তাঁর বান্দার প্রতি ফয়সালার গ্রন্থ অবর্তীণ করেছেন, যাতে সে বিশ্বজগতের জন্য সতর্ককারী হতে পারে । ' (সুরা ফুরকান, আয়াত : ১)অন্য আয়াতে এসেছে, 'বলে দাও, হে মানবমন্ডলী। তোমাদের সবার প্রতি আমি আল্লাহর প্রেরিত রাসুল, গোটা আসমান ও জমিনে যাঁর রাজত্ব। '

ফরজ গোসল করা অসম্ভব হলে কী করবে?

  

পিএনএস ডেস্ক : এমন অবস্থায় গোসল ফরজ হয়েছে, যখন গোসল করার অবস্থা নেই, তখন ওই অবস্থায় পাক-পবিত্র হওয়ার উপায় কী জবাব : পবিত্রতা অর্জনের মাধ্যম হচ্ছে পানি। আল্লাহ তাআলা পর্যাপ্ত পরিমাণ পানি প্রাকৃতিক নিয়মে সরবরাহ করে রেখেছেন। তারপরও অবস্থার আলোকে যদি পানি না পাওয়া যায় বা কেউ অসুস্থ হয়ে পানি ব্যবহারে একেবারে অপারগ হয়, সে সময়ে গোসলের পরিবর্তে তায়াম্মুম করবে। এ মর্মে আল্লাহ তাআলা বলেন,وَإِن كُنتُم مَّرْضَى أَوْ عَلَى سَفَرٍ أَوْ جَاءَ أَحَدٌ مِّنكُم مِّنَ الْغَائِطِ أَوْ لَامَسْتُمُ

হযরত শাহজালাল (র:) এর কিছু অলৌকিক কারামত

  

পিএনএস ডেস্ক: নবী-রাসূল কিংবা অলী-আউলিয়াগণ প্রয়োজনের প্রেক্ষিতে মাঝে মাঝে এমন কিছু ঘটনার অবতারণা করেছেন, স্বাভাবিক দৃষ্টিকোণ থেকে যেসব ঘটনা একদমই অলৌকিক। নবী-রাসূলগণ যখন এ ধরনের ঘটনার অবতারণা করেন, তখন তাকে বলে মুজিযা। একইরকম ঘটনার অবতারণা যখন কোনো অলী-আউলিয়া করেন, তখন তাকে বলে কারামত। সিলেটের হযরত শাহজালাল (র:) সম্পর্কেও বেশ কিছু অলৌকিক ঘটনা প্রচলিত আছে। সেসব ঘটনা মানুষের মুখে মুখে ফেরে। এগুলোর মাঝে কিছু কিছু গ্রন্থিত হয়ে বই আকারে প্রকাশও হয়েছে।লোকমুখে প্রচলিত ঘটনাগুলো মানুষভেদে অল্পস্বল্প

প্রত্যক্ষদর্শীর বয়ানে বাবরি মসজিদ ভাঙ্গার সেই মুহূর্ত

  

পিএনএস ডেস্ক : ২৫ বছর কেটে গেছে। কিন্তু এখনও ৬ই ডিসেম্বর তারিখ আসলেই মনে হয়, আমি যেন অযোধ্যার মানস ভবন ধর্মশালার ছাদে দাঁড়িয়ে আছি আর বাবরি মসজিদ ভেঙ্গে পড়ার গোটা দৃশ্যটা চোখের সামনে দেখতে পাচ্ছি।সে মানস ভবন ধর্মশালায় তার প্রায় বছর দশেক আগে, ১৯৮২ সালে আমি প্রথম গিয়েছিলাম। আমি সেখানে কয়েকদিন থেকেছিলাম।এক সাংবাদিক বন্ধু পাশের বাবরি মসজিদটা ঘুরিয়ে দেখিয়েছিলেন।বিতর্কিত রাম-জন্মভূমি-বাবরি মসজিদের বাইরে, রাম চবুতরায় দিনরাত কীর্তন চলত আর চরণ পাদুকা, সীতা রসোইয়ের মতো কিছু

কিয়ামতে সুন্দর চরিত্রের অধিকারীরা রসুল (সা.)-এর প্রিয় হবেন

  

পিএনএস ডেস্ক: রসুল সাল্লালাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম ছিলেন সুন্দরতম চরিত্রের অধিকারী। এ ক্ষেত্রে তিনি ছিলেন সত্যিকার অর্থেই অতুলনীয়। বিধর্মীরাও তাঁর সুন্দর চরিত্র ও মানবিক গুণাবলির প্রশংসা করেছেন। মহানবী (সা.) বলেছেন, ‘কিয়ামতের দিন তোমাদের মধ্যে সেই হবে আমার অতি প্রিয় ও সর্বাপেক্ষা নিকটে উপবেশনকারী, তোমাদের মধ্যে যে সুন্দরতম চরিত্রের অধিকারী। আর সেই হবে আমার কাছে অপ্রিয় ও সবচেয়ে দূরে অবস্থানকারী, যে বেশি বেশি ও বড় বড় কথার মাধ্যমে অহংকার করে। ’শান্তিপূর্ণ সমাজ ও দেশ গঠনে ভালো মানুষের প্রয়োজন।

কাবার দরজায় ৮ টুকরো মরমর পাথরের রহস্য কী?

  

পিএনএস ডেস্ক:পবিত্র কাবা শরিফের দরজার পাশেই ৮টি মরমর পাথরের টুকলো লাগানো রয়েছে। এর কারণ সম্পর্কে সম্প্রতি একটি রিপোর্ট প্রকাশ করেছে আল আরাবিয়া ডটনেট।রিপোর্টে পবিত্র কাবার দরজার সাথে সম্পর্কিত ৮ টুকরা পাথরের ইতিহাস সম্পর্কে বলা হয়। যা সম্পর্কে খুব অল্প সংখ্যক মানুষ জানেন।ধারণা করা হয়, কমপক্ষে ৮ শ বছর ধরে লাগানো আছে গাঢ় হলুদ রঙের এ পাথর। যাকে ‘মেরি স্টোন’ নামে অভিহিত করা হয়।মুয়াজ্জিনদের বক্তব্য অনুযায়ী এই ৮ টুকরা পাথর আজানখানার কাছে অবস্থিত। এখানে হরত জিবরাঈল আ. হুজুর আকরাম সা. কে

মুসলিম জনসংখ্যায় বদলে যাচ্ছে ইউরোপ

  

পিএনএস ডেস্ক : ইউরোপে দিন দিন মুসলিম জনসংখ্যা বৃদ্ধি পাচ্ছে। ধীরে ধীরে বদলে যাচ্ছে ইউরোপ। বিভিন্ন ধর্মের মানুষের সংখ্যার অনুপাতে ২০৫০ সালে ইউরোপের চেহারা কেমন দাঁড়াবে? মার্কিন গবেষণা সংস্থা ‘পিউ রিসার্চ সেন্টার’ অভিবাসনের হার বিবেচনায় এর যে নানা চিত্র দাঁড় করিয়েছে, তাতে দেখানো হচ্ছে, মুসলিম জনসংখ্যার বিরাট বৃদ্ধি ঘটবে বিভিন্ন দেশে।যেমন ধরা যাক সুইডেনের কথা। ২০১৬ সালে সুইডেনের মুসলিমদের সংখ্যা ছিল মোট জনসংখ্যার ৮ দশমিক ১ শতাংশ। কিন্তু অভিবাসনের উচ্চহার যদি অব্যাহত থাকে ২০৫০ সাল নাগাদ

হস্তী বাহিনী ধ্বংস ও ইসলামের ১ম মসজিদ নির্মাণের দিন আজ

  

পিএনএস ডেস্ক: ১৪৯২ চন্দ্র বছর আগে তথা হিজরতের ৫৩ বছর আগে ৫৭০ খ্রিস্টিয় সনের এ দিনে (১২ ই রবিউল আউয়াল) বিশ্বনবী হযরত মুহাম্মাদ (সা.) জন্মগ্রহণ করেন ।একই দিনে পবিত্র কাবা-ঘর আক্রমণ করতে আসা ইয়েমেনের আবিসিনিয় গভর্নর আবরাহা তার হস্তী বাহিনীসহ ধ্বংস হয়। আল্লাহর ইচ্ছায় কিছু আবাবিল পাখির মুখে থাকা ক্ষুদ্র কঙ্কর আবরাহার হস্তী বাহিনীর ওপর বর্ষিত হলে তারা হয়ে পড়ে চর্বিত ঘাসের মত দলিত-মথিত।বলা হয়, আবরাহা চেয়েছিল ইয়েমেনে একটি বিকল্প কাবা-ঘর বা মন্দির প্রতিষ্ঠা করতে যাতে এর মাধ্যমে ব্যবসা ও

Developed by Diligent InfoTech