যশোরে সরিষা ক্ষেতে বাড়ছে মধু চাষ

  

পিএনএস ডেস্ক: যশোরে একই জমিতে বাণিজ্যিকভাবে সরিষা ও মধু চাষ করে লাভবান হচ্ছেন চাষিরা। সরিষা ক্ষেত থেকে মধু সংগ্রহ করায় ক্ষেতে সরিষার ফলনও বেড়েছে। অল্প খরচে এ চাষ করতে পারায় দিন দিন মধু চাষের দিকে ঝুঁকছে এ অঞ্চলের কৃষকেরা।

যশোর অঞ্চলের কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের সূত্রে, জেলার আট উপজেলায় চলতি মৌসুমে ১২ হাজার ৬০ হেক্টর জমিতে সরিষার আবাদ হয়েছে। গত মৌসুমে ৯ হাজার সাতশ ৭৫ হেক্টর জমিতে চাষ হয়। যার মধ্যে এবার এক হাজার দুইশ ৬৮ হেক্টর জমিতে বাক্স বসিয়ে মৌচাষ করা হচ্ছে। এ বছর জেলায় নয়শ ৭৯ টি বক্সে সরিষার ফুল থেকে অত্যন্ত ৪হাজার কেজি মধুর যোগান মিলবে। যা গত বছর মধু উৎপাদন হয়েছিলো তিন হাজার ৬১২ কেজি।

হামিদপুর গ্রামের কৃষক আবু তালেব জানান, সরিষা চাষের সাথে সাথে মাঠে মধু সংগ্রহের ধুম পড়েছে। অধিকাংশ সরিষা ক্ষেতের মাঠের পাশে মৌ চাষের এমন বক্স স্থাপন করা হয়েছে। বক্সে থাকা লাখ লাখ মৌমাছি সরিষা ফুলে উড়ে মধু সংগ্রহ করছে। এতে সরিষা ফুলের পরাগায়নে সহায়তা হচ্ছে। আর সরিষার উৎপাদন বাড়ছে।

জেলা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের অতিরিক্ত উপ-পরিচালক সুশান্ত কুমার তরফদার জানান, জেলায় গত বছরের চেয়ে চলতি মৌসুমে সরিষার চাষ বৃদ্ধি পেয়েছে। একই জমিতে সরিষা ও মধু চাষ করলে সরিষার ফলন বাড়ে ১৫ থেকে ২০ শতাংশ। তাই সরিষার পাশাপাশি মধু চাষে কৃষকদের উদ্ধুদ্ধ করা হচ্ছে।

কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর যশোর অঞ্চলের অতিরিক্ত পরিচালক মোহাম্মদ আলী জানান, সরিষা ক্ষেতে মৌ চাষ করলে পরাগায়ন ভাল হয়। এজন্য ২০ শতাংশ ফলন বাড়ে। একই সঙ্গে মধু চাহিদাও পূরণ হয়। উন্নত প্রযুক্তি ব্যবহার করায় সরিষা ক্ষেতে মৌ চাষ বাড়ছে। সে জন্য মৌ বক্সসহ আধুনিক যন্ত্রপাতি সরবরাহ করে মৌ চাষ করার উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে।


পিএনএস/এএ

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন