মামলা হচ্ছে সন্ত্রাস দমন আইনে

  

পিএনএস ডেস্ক : রাজধানীর পশ্চিম নাখালপাড়ায় জঙ্গি আস্তানায় গতকাল শুক্রবার অভিযান চালায় র‍্যাব। এতে নিষিদ্ধ ঘোষিত জঙ্গি সংগঠন জেএমবির তিন সদস্য নিহত হয়। এ ঘটনায় সন্ত্রাস দমন আইনে মামলা হচ্ছে।

আজ শনিবার বিকেল সোয়া তিনটার দিকে এ কথা জানান র‍্যাব-৩–এর অধিনায়ক লে. কর্নেল ইমরানুল হাসান। তিনি বলেন, সন্ত্রাস দমন আইনে র‍্যাবের পক্ষ থেকে মামলাটি করা হবে।

নিহত তিনজনের নাম–পরিচয়ের বিষয়ে জানতে চাইলে ইমরানুল হাসান বলেন, তিনজনের নাম–পরিচয় সম্পর্কে এখনো নিশ্চিত হওয়া যায়নি। এ নিয়ে র‍্যাবের কাজ চলছে বলে জানান তিনি।

এদিকে পুলিশের একটি সূত্র জানায়, মামলা করার সব ধরনের প্রক্রিয়া শেষের দিকে। তেজগাঁও থানায় এই মামলা হবে।

গত বৃহস্পতিবার দিবাগত রাত দুইটা থেকে ছয়তলা ওই বাড়ির পঞ্চম তলায় ‘জঙ্গি আস্তানা’ সন্দেহে অভিযান চালায় র‍্যাব। এরপর একটানা প্রায় ৪০ মিনিট গোলাগুলি হয় বলে আশপাশের লোকজনের সঙ্গে কথা বলে জানা যায়।

পরদিন শুক্রবার সকালে র‍্যাবের আইন ও গণমাধ্যম শাখার পরিচালক কমান্ডার মুফতি মাহমুদ খান জঙ্গি আস্তানায় তিনজন নিহত হওয়ার তথ্যের সত্যতা নিশ্চিত করেন।

পশ্চিম নাখালপাড়ায় প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয় থেকে ১০০ গজের মতো দূরে ‘রুবি ভিলার’ অবস্থান। সাংসদদের সরকারি বাসভবন বা ন্যাম ভবনের কাছেই এটি। ছয়তলা বাসার পঞ্চম তলায় মেস বাসা ছিল।

শুক্রবার সকালে জঙ্গি আস্তানাটি পরিদর্শন শেষে র‍্যাবের মহাপরিচালক বেনজীর আহমেদ সাংবাদিকদের বলেন, নিহত তিন যুবকের একজনের নাম জাহিদ অথবা সজীব হতে পারে। ওই যুবকের দুটি জাতীয় পরিচয়পত্র পাওয়া গেছে। একটিতে তাঁর নাম জাহিদ ও আরেকটিতে সজীব বলে উল্লেখ রয়েছে। তিন যুবকেরই বয়স ২৫ থেকে ৩০ বছরের মধ্যে। চলতি মাসের ৪ তারিখে তাঁরা বাড়িটি ভাড়া নেন।

নিহত তিনজনই জঙ্গি। অভিযান চলাকালে তাঁরা গ্যাসের চুলায় গ্রেনেড রেখে বড় ধরনের বিস্ফোরণ ঘটানোর চেষ্টা করেছেন। ওই জঙ্গি আস্তানার ভেতরে পাওয়ার জেল, সুইসাইডাল ভেস্ট ও বিভিন্ন বিস্ফোরক দ্রব্য পাওয়া গেছে। অবিস্ফোরিত আইডি ছিল বলে জানান র‍্যাবের মহাপরিচালক।

পিএনএস/জে এ /মোহন

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech