পিটুনিতে মহামেডানের সাবেক গোলরক্ষক ৫

  

পিএনএস ডেস্ক: নাটোরের সিংড়ায় বঙ্গবন্ধু গোলকাপ টুর্নামেন্টে খেলোয়াড়ের তালিকা বাছাই নিয়ে বিরোধের জের ধরে বাংলাদেশের মহামেডান ক্লাবের সাবেক গোলরক্ষক কায়সার হামিদ জ্যাকিসহ পাঁচজনকে রড ও লাঠি দিয়ে পিটিয়ে গুরুতর আহত করেছে প্রতিপক্ষের লোকেরা।

রবিবার সন্ধ্যায় নাটোর-বগুড়া মহাসড়কের খেজুরতলা এলাকায় এই হামলার ঘটনা ঘটে। পরে আহতের উদ্ধার করে সিংড়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে।

সিংড়া থানা পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, সম্প্রতি সিংড়া উপজেলার দমদমা পাইলট স্কুল এড কলেজ মাঠে বঙ্গবন্ধু গোলকাপ অনূর্ধ্ব-১৭ টুর্নামেন্টের লালোর একাদশ এর খেলোয়াড়ের তালিকা বাছাই নিয়ে বিরোধ হয় ওই খেলা পরিচালনা কমিটির সদস্যদের মধ্যে। পরে বিরোধ মিটিয়ে খেলাধুলা সমাপ্তও করা হয়। কিন্তু রবিবার সন্ধ্যায় ওই টুর্নামেন্টের ফাইনাল খেলা শেষে নাটোর থেকে সিংড়া ফেরার পথে খেজুরতলা এলাকায় গাছের গুল ফেলে মহাসড়ক আবরোধ করে প্রতিপক্ষরা লালোর একাদশ এর লোকজন। পরে প্রতিপক্ষ স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান নজরুল ইসলামের ভাতিজা রেজাউল এর নেতৃত্বে ১৫ থেকে ২০ জন দুর্বৃত্ত খেলোয়াড়দের ট্রাকে অতর্কিত হামলা চালায়। এ সময় লোহার রড ও ধারালো অস্ত্র দিয়ে বাংলাদেশ মহামেডান ক্লাবের সাবেক গোল রক্ষক ও সিংড়া উপজেলার সেরা গোল রক্ষক কায়সার হামিদ জ্যাকিসহ ৫জনকে পিটিয়ে গুরুত্বর আহত করে প্রতিপক্ষরা।

আহত অন্যরা হলেন- মিজানুর রহমান, রাজিব হোসেন, শাকিল আহমেদ, শরিফ উদ্দিন।
সিংড়া উপজেলা ক্রিড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক আকবর আলী বলেন, খেলা পরিচালনা নিয়ে লালোর একাদশ এর সাঙ্গে তাদের একটা বিরোধ হয়েছিল। যেটা সঙ্গে সঙ্গে মিটিয়ে দেয়া হয়েছিল। তারপরও আজ তাদের ট্রাকে হামলা চালানো হয়েছে। এটা খুবই দুঃখজনক।

সিংড়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মনিরুল ইসলাম ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

পিএনএস/হাফিজুল ইসলাম

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech