সাকিবকে এশিয়া কাপে খেলার জন্য ফোর্স করা হয়নি: পাপন

  


পিএনএস ডেস্ক : চলতি বছরের জানুয়ারিতে মিরপুর শেরে বাংলা ক্রিকেট স্টেডিয়ামে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে খেলার সময়ই আঙুলের ইনজুরিতে পড়েন টাইগার অলরাউন্ডার সাকিব আল হাসান। এরপর বেশ কিছুদিন খেলার বাইরে ছিলেন এবং আঙুলের চিকিৎসা করিয়ে মাঠে ফেরেন তিনি।

আফগানিস্তানের বিপক্ষে টি-টোয়েন্টি সিরিজ কিংবা ওয়েস্ট ইন্ডিজে গিয়ে টেস্ট, ওয়ানডে এবং টি-টোয়েন্টি সিরিজ খেলার সময়ই জানা গেছে, পুরোপুরি সুস্থ হতে হলে আঙুলে অস্ত্রোপচার করাতে হবে।

সাকিব চেয়েছিলেন এশিয়া কাপ না খেলে অস্ত্রোপচারটা করে ফেলতে। কিন্তু বিসিবি সভাপতি চেয়েছিলেন সাকিব এশিয়া কাপটা খেলুক। যদিও তিনি সিদ্ধান্তের ভার সাকিবের ওপর ছেড়ে দেন। শেষ পর্যন্ত ফিজিওর রিপোর্টের ওপর ভিত্তি করেই সাকিব এশিয়া কাপ খেলার সিদ্ধান্ত নেন। ব্যথানাশক ইনজেকশন দিয়ে এবং ওষুধ খেয়ে সাকিব এশিয়া কাপ খেলে যান। কিন্তু শেষ পর্যন্ত পারেননি খেলতে।

এশিয়া কাপের মাঝপথে আর ক্রিকেট চালিয়ে যাওয়া সম্ভব হয়নি তার। টুর্নামেন্টের মাঝপথেই ধরতে হয় দেশের বিমান। দেশের ফিরে দুই দফায় ইনফেকশন হওয়া আঙ্গুলের পুঁজ-রক্ত বের করতে হয়েছে। সে সময় পুঁজগুলো বের করতে না পারলে হাতই নষ্ট হয়ে যাওয়ার উপক্রম হয়েছিল। হতাশার কথা, তার এই আঙুল নাকি কখনোই শতভাগ ঠিক হবে না।

সেই হতাশা নিয়ে গত শুক্রবার রাতে অস্ট্রেলিয়ায় গিয়েছেন সাকিব আরো উন্নত চিকিৎসা করাতে। প্রায় এক সপ্তাহ মেলবোর্নে কাটাবেন সাকিব। তারপর অস্ত্রোপচার করাতে যাবেন যুক্তরাষ্ট্রে।

এ ব্যাপারে বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন সাংবাদিকদের বলেন, এশিয়া কাপে খেলার জন্য সাকিবকে ফোর্স করা হয়নি। সে নিজে থেকেই খেলেছে। ডাক্তার এবং ফিজিও সবার পরামর্শ নিয়েই খেলছে। তাছাড়া এশিয়া কাপ খেলতে গিয়েই এমন হয়েছে, তা কিন্তু নয়।

শুক্রবার (০৫ অক্টোবর) অস্ট্রেলিয়ায় যাওয়ার আগে সাকিব সাংবাদিকদের বলেছিলেন, মূল যে অস্ত্রোপচারটা করার কথা, সেটা হলে ৬ থেকে ৮ সপ্তাহ সময় লাগে। সাধারণত ৬ সপ্তাহের ভেতরেই ঠিক হয়ে যায়। ২ সপ্তাহ অতিরিক্ত হাতে রাখা হয়। ৬ সপ্তাহের মধ্যে ঠিক হয়ে যায়, তাহলে তো বিপিএলের বেশ আগেই ফিট হয়ে যাবো।

চলতি বছরই ঘরের মাঠে আয়োজিত হবে জিম্বাবুয়ে ও ওয়েস্ট ইন্ডিজ সিরিজ। অর্থাৎ এ দুই দলের বিপক্ষে মাঠে নামার কোনও সম্ভাবনাই নেই সাকিবের। আগামী বছরও কবে সেটা পারবেন এখনই বলতে পারছেন না। সম্ভাবনা আছে ফেব্রুয়ারির নিউজিল্যান্ড সফর। কিন্তু সেটিও এখনই চূড়ান্ত নয়। তবে জানুয়ারির বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগে (বিপিএল) ঢাকা ডায়নামাইটের এই আইকন খেলার ব্যাপারে আশাবাদী।

পিএনএস/এএ

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech